ই-পেপার  বুধবার ১৯ জুন ২০১৯ ৫ আষাঢ় ১৪২৬
ই-পেপার  বুধবার ১৯ জুন ২০১৯

সিলেটের ঈদবাজার
শপিংমলে পুুলিশের ‘সতর্ক দৃষ্টি’ অপরাধ দেখলেই অ্যাকশন
মনোয়ার জাহান চৌধুরী সিলেট
প্রকাশ: সোমবার, ২৭ মে, ২০১৯, ১২:০০ এএম | প্রিন্ট সংস্করণ

ঈদ সামনে রেখে সিলেটকে নিরাপত্তার চাদরে ঢেকে রেখেছে পুলিশ। নগরীর প্রতিটি শপিংমলে রয়েছে পুলিশের ‘সতর্ক দৃষ্টি’। শপিংমল ঘিরে থাকবে পুলিশ। আর বাইরে থাকছে পুলিশের সাদা পোশাকধারী সদস্যরা। মার্কেটকেন্দ্রিক এলাকায় রয়েছে পুলিশের একটি দল। ছিনতাই ঠেকাতেও পুলিশের ‘সতর্ক দৃষ্টি’ থাকবে নগরজুড়ে। পুুলিশের ওই ‘সতর্ক দৃষ্টির’ বাইরে থাকবে না মলম পার্টি-পকেটমারও। অপরাধীরা কাউকে লক্ষ্যবস্তু করলেই সঙ্গে সঙ্গেই অ্যাকশনে যাবে পুলিশ। সিলেট মেট্রোপলিটন পুুলিশ সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
চুরি-ছিনতাই ঠেকাতে হুমায়ুন রশীদ চত্বর, চÐীপুল, শাহজালাল উপশহর, মেন্দিবাগ পয়েন্ট, ক্বিনব্রিজ এলাকা, শাহপরান বাইপাসে থাকবে পুুলিশের তল্লাাশি চৌকি। ব্যাংক থেকে টাকা উত্তোলন কিংবা বহনের সময় পুলিশের সহায়তা নিতে নগরবাসীর প্রতি আহŸান জানানো হয়েছে এসএমপির পক্ষ থেকে।
২৪ ঘণ্টা গাড়ি তল্লাশির মাধ্যমে নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণের মাধ্যমে এবারের ঈদের কেনাকাটা যাতে নির্বিঘেœ হয় সে বিষয়টি মাথায় রেখেই নিরাপত্তার চাদরে ঢেকে দেওয়া হয়েছে সিলেট নগরীকে।
সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, ঈদের কেনাকাটাকে নির্বিঘœ ও নিরাপদ রাখতে নগরজুড়ে নিñিদ্র নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। নগরীর বিপণিবিতান, গুরুত্বপূর্ণ মোড় আর সড়কগুলোতে বসানো হয়েছে বিশেষ টহল। ঈদের কেনাকাটা স্বাচ্ছন্দ্যে করতে প্রতিটি বিপণিবিতানে মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ। পাশাপাশি নগরজুড়ে মোতায়েন রয়েছে বাড়তি পুলিশ সদস্য। ঈদ এলেই নগরীতে সক্রিয় হয়ে ওঠে ‘মৌসুমি’ অপরাধী চক্র। তারা চুরি-ছিনতাইসহ বিভিন্ন ধরনের অপরাধে জড়িয়ে পড়ে। আর এসব ‘মৌসুমি’ অপরাধ ঠেকাতে নগরময় নেওয়া হয়েছে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা।
এ বিষয়ে সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (গণমাধ্যম) মো. জেদান আল মুসা সময়ের আলোকে বলেন, বড় বড় শপিংমল আর মার্কেটকেন্দ্রিক এলাকায় পুলিশি নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। ঈদে সব ধরনের অপরাধ ঠেকাতে পুলিশ সতর্ক রয়েছে।
পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, নগরীর বন্দর বাজারের হাসান মার্কেট, মধুবন সুপার মার্কেট, করিম উল্লাহ মার্কেট, জিন্দাবাজারের আল-হামরা শপিং সিটি, শুকরিয়া, সিটি সেন্টার, বøু ওয়াটারসহ অন্য মার্কেটগুলোতে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।
এসএমপির অতিরিক্ত উপ-কমিশনার জেদান বলেন, নগরবাসীর সহযোগিতায় এসএমপির গৃহীত নিরাপত্তা ব্যবস্থায় হিসেবে মার্কেট ও শপিংমলের প্রতিটি অংশ সিসিটিভি ক্যামেরার আওতাভুক্ত করা হয়েছে। ঈদ কেনাকাটায় বড় অংকের টাকা আনা-নেওয়ার ক্ষেত্রে রয়েছে পুলিশের ‘মানি এস্কর্ট’ ব্যবস্থা।
ব্যাংকগুলোকে কেন্দ্র করে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, মানুষ যাতে নিরাপদে টাকা-পয়সা উত্তোলন করে গন্তব্যে পৌঁছতে পারে পুলিশ সে বিষয়ে সহযোগিতা করবে। মার্কেটের নিরাপত্তা নিশ্চিতে সার্বক্ষণিক পাহারায় নারী পুলিশের বিশেষ দল থাকছে জানিয়ে এসএমপির অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (গণমাধ্যম) মো. জেদান আল মুসা বলেন, মার্কেটে ইভটিজিং প্রতিরোধে কাজ করছে বিশেষ ইউনিট। মার্কেটের সামনে যানজট এড়াতে ট্রাফিক পুলিশের পাশাপাশি কাজ করছে কমিউনিটি পুলিশ ও মার্কেট কর্তৃপক্ষ কর্তৃক নিয়োজিত স্বেচ্ছাসেবক দল।





সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : রফিকুল ইসলাম রতন
আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ।
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]