ই-পেপার বৃহস্পতিবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ৪ আশ্বিন ১৪২৬
ই-পেপার বৃহস্পতিবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯

চিরিরবন্দর উপজেলা সদর সড়ক
জনপ্রতিনিধি বদলায় রাস্তা আর সংস্কার হয় না
চিরিরবন্দর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি
প্রকাশ: সোমবার, ২৭ মে, ২০১৯, ১২:২৭ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

জনপ্রতিনিধি বদলায়  রাস্তা আর সংস্কার হয় না

জনপ্রতিনিধি বদলায় রাস্তা আর সংস্কার হয় না

দিনাজপুর চিরিরবন্দর উপজেলা সদর সড়কের  ঘুঘুড়াতলী থেকে ষ্টেশন পর্যন্ত প্রায় ১ কি.মি সড়কটিতে ৫ বছর ধরেও তেমন কোনো উন্নয়নের ছোয়া লাগেনি। এবড়ো খেবড়ো এ রাস্তায় চলাচলে নাকাল হচ্ছে বাসিন্দারা। সমান্য বৃষ্টি হলে হাঁটুপানিতে তলিয়ে যায় এ সড়ক। ড্রেনেজ ব্যবস্থা ভালো না থাকায় পয়োনিষ্কাশনের পানি মাড়িয়ে চলাফেরা করতে হয়। তবে সংস্কার করা হবে বলে বাস্তবায়ন ঝুলে আছে আশ্বাসে। এ যেন অনেক দিনের খুব পুরনো আশ্বাস যা শুধু থেমেই থাকে।

তবে সম্প্রতি রাস্তাটির হাসপাতাল মোড় থেকে ষ্টেশন পর্যন্ত হিরিমবমের কাজ করা হয়েছে কিন্তু তেমন কোন রাস্তার উন্নতি হয়নি। দূভোগ রয়েই গেছে মানুষের যাতায়েতে। পয়োনিষ্কাশনের কোন ব্যবস্থা না থাকায়  বৃষ্টি হলে কোথাও হাঁটু পানি,আবার কোথাও উরু পর্যন্ত পানিতে ভরে থাকে।

এ ছাড়া সড়কটি বেহাল হওয়ায় প্রতিনিয়ত যানজট লেগেই থাকে। দুই মিনিটের পথ পার হতে সময় লাগে পনেরো মিনিট। স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, এ রাস্তা সংস্কার করা না হলে এ বছরের বর্ষায় যাতায়াতকারীদের ভোগান্তি আরও বাড়বে।

ওই এলাকার বাসিন্দা রহিছ উদ্দিন বলেন, ৫ বছরের বেশি সময় ধরে এ রাস্তার কোন ভালো অবস্থা আসেনি। এগুলো দেখার যেন কেউ নেই। এ অবস্থা থেকে আমরা যে কবে মুক্তি পাব জানি না। জনপ্রতিনিধি বদলায় কিন্তু এটুকু রাস্তার কাজ কখনও কেউ করে না। সরেজমিন দেখা যায়, ঘুঘুড়াতলী থেকে চিরিরবন্দর উপজেলা সদর থানা রোড পর্যন্ত সড়কটিতে খানাখন্দে ভরা। কিছু কিছু জায়গায় ইটের সুরকি উঠে গেছে।

থানা যাওয়া আসার একমাত্র এ সড়কটি দীর্ঘদিন যাবৎ সংস্কার না হওয়ায় জরুরী কাজে আইন শৃংখলা বাহিনীর গাড়ী বের হওয়া বড়ই কষ্টসাধ্য হয়ে পড়েছে। খানাখন্দে ভরা ব্যস্ততম এই সড়কটি শুষ্ক মৌসুমে পরিণত হয় ধুলার রাজ্য আর বর্ষা মৌসুমে হয় কাঁদার বাগাড়। ফলে সরকারী বেসরকারী স্কুল কলেজের শিক্ষার্থী শিক্ষক অফিসের কর্মকর্তা কর্মচারী সাধারণ জনগন বিভিন্ন যানবাহন চরম দুর্ভোগ নিয়ে চলাচল করছে।

এলাকাবাসীর অনেকে ক্ষোভ প্রকাশ করে জানান, সড়কটি পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা না থাকায় ও প্রয়োজনীয়  সংস্কার ঠিক মত না করায় বছর ঘুরতে না ঘুরতেই বেহাল অবস্থার সৃষ্টি হয়। এ অবস্থায় এলজিইডিসহ সড়ক ও জনপদ অধিদপ্তর দ্রুত সড়কটি মেরামত না করলে জনদুর্ভোগ দিনদিন বেড়েই চলবে।




সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : রফিকুল ইসলাম রতন
আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ।
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]