ই-পেপার  বুধবার ২৩ অক্টোবর ২০১৯ ৬ কার্তিক ১৪২৬
ই-পেপার  বুধবার ২৩ অক্টোবর ২০১৯

গোয়ালন্দে মাছ ধরার উপকরণ তৈরিতে ব্যস্ত ২০০ পরিবার
গোয়ালন্দ (রাজবাড়ী) প্রতিনিধি
প্রকাশ: শুক্রবার, ১২ জুলাই, ২০১৯, ১২:০০ এএম আপডেট: ১২.০৭.২০১৯ ১২:২৯ এএম | প্রিন্ট সংস্করণ

গোয়ালন্দে মাছ ধরার উপকরণ তৈরিতে ব্যস্ত ২০০ পরিবার

গোয়ালন্দে মাছ ধরার উপকরণ তৈরিতে ব্যস্ত ২০০ পরিবার

বর্ষায় পদ্মায় পানি বাড়ায় পাওয়া যাচ্ছে বিভিন্ন প্রজাতির দেশীয় মাছ। তাই কদর বেড়েছে ঘূর্ণী, দোয়ারি, চাঁইসহ মাছ ধরার বিভিন্ন উপকরণের। এসব উপকরণ তৈরিতে ব্যস্ত সময় পার করছে গোয়ালন্দ উপজেলার ২০০ পরিবার। বুধবার সকালে রাজবাড়ী জেলার গোয়ালন্দ উপজেলার উজানচর ইউনিয়নের মইজউদ্দিন মন্ডলের পাড়ায় গিয়ে দেখা যায়, সেখানে প্রতিটি বাড়িতে পরিবারের সবাই মিলে তৈরি করছেন মাছ ধরার নানা সামগ্রী। পুরো এলাকায় বাঁশ কাটার টুং টাং শব্দ।

মইজউদ্দিন মন্ডল পাড়ার বাসিন্দা ফজলুল হক মন্ডল বলেন, প্রতিদিন সকাল থেকে রাত পর্যন্ত দম ফেলার সময় নেই। পদ্মার পানি বাড়ায় এখন নদীতে প্রচুর দেশীয় মাছ ধরা পড়ছে। যে কারণে এসব উপকরণের চাহিদা বেড়েছে। পরিবারের পুরুষের পাশাপাশি নারীরা এ কাজে বেশি ভ‚মিকা রাখেন। একই এলাকার আরেক বাসিন্দা জাহিদ হোসেন টুলু বলেন, আমাদের এ গ্রামে বর্ষা মৌসুমে চাঁই, ঘূর্ণী, দোয়ারি, ছোট পার, বড় পারসহ বিভিন্ন উপকরণ তৈরি করা হয়। আরেক কারিগর শাজাহান মিয়া বলেন, এসব উপকরণ তৈরিতে বাঁশ, সুতা ও প্লাস্টিকের রশির প্রয়োজন হয়। ১০০টি চাঁই তৈরি করতে প্রায় সাড়ে ৩ হাজার টাকা খরচ হয়। যা বিক্রি হয় পাঁচ হাজার টাকায়। গোয়ালন্দ বাজারের চাঁই বিক্রেতা রঞ্জ খান জানান, সপ্তাহে দুদিন মাছ ধরার উপকরণের হাট বসে। হাটের দুদিন কয়েক লাখ টাকার মাছ শিকারের উপকরণ বিক্রি হয়।




সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড-এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ।
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]