ই-পেপার শুক্রবার ৬ ডিসেম্বর ২০১৯ ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
ই-পেপার শুক্রবার ৬ ডিসেম্বর ২০১৯

নলছিটিতে তিন গ্রামের চাওয়া একটি রাস্তা!
ঝালকাঠি প্রতিনিধি
প্রকাশ: শুক্রবার, ৯ আগস্ট, ২০১৯, ৫:০২ পিএম | অনলাইন সংস্করণ  Count : 63

নলছিটিতে তিন গ্রামের চাওয়া একটি রাস্তা!
ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলার সিদ্ধকাঠী ইউনিয়নের চন্দ্রকান্দা চৌমাথা থেকে দেওপাশা, রাজপাশা এবং চৌদ্দবুড়িয়া যাওয়ার একমাত্র রাস্তাটি চলাচলে অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। র্দীঘদিন ধরে স্থানীয় কর্তৃপক্ষের উদাসীনতায় রাস্তাটি মৌসুমী জোয়ারের পানিতে তলিয়ে গেছে। যার ফলে বর্তমানে এই রাস্তাটি এলাকাবাসীর জন্য মরণফাঁদে পরিণত হয়েছে।

জানা গেছে, এ রাস্তাটি দিয়ে চন্দ্রকান্দা মাধ্যমিক বিদ্যালয, চন্দ্রকান্দা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় এবং চৌদ্দবুড়িয়া দারুল উলুম মাদ্রাসা এবং গোচরা ইসলামিয়া হোসাইনিয়া দাখিল মাদ্রাসাসহ কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষার্থীরা যাতায়াত করে। এছাড়া এটি তিনটি গ্রামের জনগণের জেলা ও এবং উপজেলায় যাতায়াত করার একমাত্র রাস্তা ।

সরেজমিনে ঘুরে দেখা গেছে, মাটির তৈরি এ রাস্তাটিতে অসংখ্য স্থানে ছোট-বড় খানাখন্দ। এসব স্থানে বৃষ্টির পানি জমে মানুষ চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ে। রাস্তাটি বর্তমানে মৌসুমী জোয়ারের পানিতে তলিয়ে যাওয়ায় প্রতিনিয়ত পথচারীরা খানাখন্দে পড়ে ও হোচট খেয়ে আহত হচ্ছেন। ফলে উপজেলা, জেলা শহরের সাথে যোগাযোগকারী পথচারীদের চলাচলে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। তাছাড়া বেশ কয়েকটি স্থানে বড় বড় গতের্র সৃষ্টি হওয়ায় জনদুর্ভোগ চরমে পৌঁছেছে। ওই রাস্তা দিয়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে প্রতিদিন বিভিন্ন ধরনের যানবাহন চলাচল করায় প্রায়ই ঘটছে ছোটবড় দুর্ঘটনা। বর্ষাকালে এখানে কোন যানবাহন চলাচল করতে না পারায় রোগীদের চিকিৎসাসেবা দিতে চরম বিপাকে পড়তে হচ্ছে এলাকাবাসীর।

এব্যাপারে সিদ্ধকাঠী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কাজী জেসমিন আক্তার বলেন, রাস্তাটি জনগুরুত্বপূর্ণ। এটি সংস্কারের জন্য দীর্ঘদিন যাবত চেষ্টা চলছে, বরাদ্দের জন্য সংশ্লিষ্ট দপ্তরে আবেদন করা হয়েছে । বরাদ্দ পেলেই দ্রুত সংস্কার করা হবে।




সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড-এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]