ই-পেপার মঙ্গলবার ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ২ আশ্বিন ১৪২৬
ই-পেপার মঙ্গলবার ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯

আশুরার রোজার ফজিলত
হাম্মাদ রিফাত
প্রকাশ: সোমবার, ৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ১২:০০ এএম | প্রিন্ট সংস্করণ

ইসলামের ইতিহাসে আশুরা তথা ১০ মহরম বিশেষ তাৎপর্যপূর্ণ একটি দিন। এ দিনে রাসুল (সা.) বিশেষ যেসব আমল করতেন তার মধ্যে রোজা রাখা অন্যতম। এ ব্যাপারে রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেনÑ ‘রমজানের ফরজ রোজার পর সবচেয়ে শ্রেষ্ঠ রোজা হচ্ছে আল্লাহর মাস মহরমের রোজা।’ (মুসলিম : ২৮১২)রাসুলুল্লাহ (সা.) মক্কা থেকে মদিনায় হিজরত করার পর দেখেন এ দিনে ইহুদিরা ভক্তিভরে রোজা রাখছে। রাসুল (সা.) তাদের জিজ্ঞাসা করলেন, তোমরা এই দিনে কেন রোজা রাখছ? উত্তরে তারা বলল, এই দিনে আল্লাহ তায়ালা হজরত মূসা (আ.) এবং তার উম্মতকে ফেরাউনের কবল থেকে মুক্তি দিয়েছিলেন আর ফেরাউন ও তার দলবলকে পানিতে ডুবিয়ে ধ্বংস করেছিলেন। তাই হজরত মূসা (আ.) কৃতজ্ঞতাস্বরূপ এ দিনে রোজা পালন করতেন এবং আমরাও তার অনুসরণে এ দিনে রোজা রাখি। তখন রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেন, হজরত মূসা (সা.)-এর কৃতজ্ঞতা আদায়ের ক্ষেত্রে আমরা তোমাদের চেয়ে বেশি অধিকার রাখি। অতঃপর রাসুলুল্লাহ (সা.) নিজে আশুরার দিনে রোজা রাখেন এবং উম্মতকেও রোজা রাখার নির্দেশ প্রদান করেন।’ (বুখারি : ১৯০০)। তবে রোজা রাখার ক্ষেত্রে ইহুদিদের সঙ্গে যেন মুসলিমদের আমল যেন মিলে না যায়, সে জন্য আশুরার আগে-পরে একটি রোজা বেশি রাখতে বলা হয়েছে। রাসুল (সা.) বলেন, ‘তোমরা আশুরার রোজা পালনের ক্ষেত্রে ইহুদিদের বিরোধিতা কর; আশুরার আগে বা পরে আরও একদিন বেশি রোজা রাখ।’ (মুসনাদে আহমদ : ২১৫৪)
আশুরার রোজার বিশেষ ফজিলত রয়েছে। এ ব্যাপারে হজরত আবদুল্লাহ ইবনে আব্বাস (রা.) থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, ‘আমি রাসুলুল্লাহকে (সা.) রমজান ও আশুরায় যেরূপ গুরুত্বের সঙ্গে রোজা রাখতে দেখেছি অন্য সময় তা দেখিনি।’ (বুখারি : ১৯০২)। অন্য হাদিসে রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেন, ‘আমি আশাবাদী যে, আশুরার রোজার কারণে আল্লাহ তায়ালা অতীতের এক বছরের গুনাহ ক্ষমা করে দেবেন।’ (মুসলিম : ২৮০৩)
প্রসঙ্গত, সহিহ হাদিসের সূত্রে জানা যায়, আশুরার দিনে আমাদের আদি পিতা হজরত আদম (আ.)-এর তাওবা কবুল হয়, হজরত নূহ (আ.)-এর নৌকা জুদি পর্বতের চ‚ড়ায় নোঙ্গর করে। বিশেষ করে, হজরত মুসা (আ.) ও তার সম্প্রদায়কে ফেরাউনের কবল থেকে অলৌকিকভাবে মুক্তিসহ এই দিনে হজরত ঈসা (আ.) জন্মগ্রহণ করেন। এ ছাড়া আরও অসংখ্য অলৌকিক, ঐতিহাসিক ও হৃদয়বিদারক ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী এই আশুরা। সঙ্গত কারণেই মুসলমানদের কাছে আশুরার গুরুত্ব অপরিসিম। নবী-রাসুলগণ এ দিনটিকে রোজার মাধ্যমে উদযাপন করতেন।




সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : রফিকুল ইসলাম রতন
আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ।
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]