ই-পেপার বৃহস্পতিবার ২১ নভেম্বর ২০১৯ ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬
ই-পেপার বৃহস্পতিবার ২১ নভেম্বর ২০১৯

বাগেরহাটে সাংবাদিক  নেতা ও ওসির কাণ্ড
প্রেমের ঘটনা ঢাকতে মিথ্যা মামলায় কারাবন্দি স্কুলছাত্র
বাগেরহাট প্রতিনিধি
প্রকাশ: শুক্রবার, ৮ নভেম্বর, ২০১৯, ১২:০০ এএম আপডেট: ০৮.১১.২০১৯ ১২:৪১ এএম | প্রিন্ট সংস্করণ  Count : 31

প্রেমের ঘটনা ঢাকতে মিথ্যা মামলায় কারাবন্দি স্কুলছাত্র

প্রেমের ঘটনা ঢাকতে মিথ্যা মামলায় কারাবন্দি স্কুলছাত্র

একই স্কুলে পড়ার সুবাদে নিজ ক্লাসের এক মেয়ের সঙ্গে বন্ধুত্ব গড়ে ওঠে রাফির। বন্ধুত্ব থেকে উঠতি বয়সের আবেগ-ভালোবাসার সৃষ্টি হয় তাদের মধ্যে। কিন্তু মেয়েটির বাবা স্থানীয় সাংবাদিক নেতা খোন্দকার নিয়াজ ইকবালের তা সহ্য হয়নি। আর তাই বাগেরহাটের কচুয়া থানার ওসি শেখ সফিকুর রহমানের যোগসাজশে রাফির নামে মিথ্যা মামলা দিয়ে তাকে কারাবন্দি করেছে তথাকথিত এই সাংবাদিক নেতা।

মিথ্যা মামলায় এখনও কারাবন্দি ওই স্কুলছাত্রের নাম মুশফিকুর রহমান রাফি (১৬)। সে কচুয়া সিএস পাইলট সরকারি মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্র। এদিকে তুচ্ছ এ বিষয়টি মীমাংসা করতে কথিত ওই সাংবাদিক নেতা, ওসিসহ গণ্যমান্য ব্যক্তিদের কাছে ধরনা দিয়েও কোনো প্রতিকার পাননি।

অবশেষে বৃহস্পতিবার দুপুরে বাগেরহাট প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেন রাফির বাবা মো. মশিউর রহমান রহমান ও মাতা মনিরা বেগম। সংবাদ সম্মেলনে তারা বলেন, তাদের ছেলে মো. মুশফিকুর রহমান রাফি ও কচুয়া উপজেলা সদরের প্রেসক্লাব সভাপতি খোন্দকার নিয়াজ ইকবালের মেয়ে একই স্কুলের দশম শ্রেণির ছাত্রছাত্রী। তাদের দুজনের মধ্যে সম্প্রতি বন্ধুত্বের সম্পর্ক হয়। স্কুলে পড়া অবস্থায় এ সম্পর্ক যাতে গভীরে না যায় সে জন্য আমরা ছেলে ও মেয়েকে অনেক বুঝিয়েছি। এরপরও তারা মোবাইল ফোনে যোগাযোগ রক্ষা করে চলেছে। বিষয়টি সাংবাদিক নিয়াজ ইকবাল না মেনে ভিন্ন খাতে নিতে ক্ষমতার অপব্যবহার করে ৩০ অক্টোবর সন্ধ্যার পর তার মেয়েকে দিয়ে রাফিকে ফোন করিয়ে তাদের বাসায় ডেকে নিয়ে হাতুড়িপেটা করে। এক পর্যায়ে কচুয়া থানার ওসিকে বলে হত্যাচেষ্টা ও চুরির মিথ্যা ঘটনা সাজিয়ে রাফিকে থানা পুলিশে সোপর্দ করে। থানা পুলিশ রাফিকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে রাতেই থানা হাজতে আটকে রাখে। পরে রাফি ও অন্য এলাকার আল আমিন নামে দুজনের নামে ২০ হাজার টাকা চুরি ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ এনে মিথ্যা মামলা করে ওই সাংবাদিক নেতা নিয়াজ। এসব ঘটনায় সঠিক বিচার দাবি করেছেন রাফির মা-বাবা।






সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড-এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]