ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা শুক্রবার ২৩ অক্টোবর ২০২০ ৮ কার্তিক ১৪২৭
ই-পেপার শুক্রবার ২৩ অক্টোবর ২০২০

চতুর্থবার তালিকায় মোদি
বিশ্বের ১০০ প্রভাবশালীর তালিকায় ৮২ বছরের বিলকিস বানু
সময়ের আলো ডেস্ক
প্রকাশ: শুক্রবার, ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ১১:০৬ পিএম আপডেট: ২৪.০৯.২০২০ ১১:২৬ পিএম | প্রিন্ট সংস্করণ  Count : 20

বিশ্বকে অবাক করেছেন ৮২ বছরের এক নারী। জীবনের পড়ন্ত সময়ে টাইম ম্যাগাজিনের বিশে^র শীর্ষ ১০০ প্রভাবশালীর তালিকায় নাম উঠেছে তার। ভারতের বিতর্কিত নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে ফুঁসে ওঠা এ প্রভাবশালী নারীর নাম বিলকিস বানু। বিবিসি। ভারতের শাহিনবাগে বিক্ষোভের প্রতীক হয়ে ওঠা বিলকিস বানু যুক্তরাষ্ট্রের টাইম ম্যাগাজিনের দৃষ্টিতে প্রভাবশালী নারী হিসেবে বিবেচিত হয়েছেন। মঙ্গলবার বিশে^র শীর্ষ ১০০ প্রভাবশালীর তালিকা প্রকাশ করে ম্যাগাজিনটি। টাইম ম্যাগাজিন প্রতিবছর বিশ^জুড়ে প্রভাব রাখা অগ্রগামী, নেতা ও আদর্শিক লোকদের একটি তালিকা প্রস্তুত করে। সেই তালিকায় বিলকিস বানুর নাম উঠেছে। বিলকিসকে সবাই দাদি হিসেবে ডাকে বলে ম্যাগাজিনের প্রোফাইলে জানানো হয়। ভারতীয় সাংবাদিক এবং লেখক রানা আইযুব বিলকিস বানুকে ‘সংখ্যালঘুর কণ্ঠ’ হিসেবে বর্ণনা করেছেন।
রানা আইযুব বলেন, ভারত জুড়ে গণতন্ত্রের পক্ষে দাঁড়িয়েছিল অনেক আন্দোলনকর্মী ও শিক্ষার্থী। সরকার তাদের আটক করে কারাগারে ঢোকায়। তখন বিলকিস তাদের আশা ও মনোবল জাগিয়েছিলেন।
এদিকে বিশে^র শীর্ষ প্রভাবশালী ১০০ জনের তালিকায় বিলকিসের নাম ঘোষণার পর শাহিনবাগ এলাকাসহ সবদিকেই আনন্দের বন্যা বইতে থাকে। এ ছাড়া টুইটারে হ্যাশট্যাট শাহিনবাগ দিয়ে বিলকিস বানুর অর্জনকে উদযাপন করছেন অনেকে। তাই টুইটারের আজকের (গতকালের) ট্রেন্ড বিলকিস বানু।
বলিউডের পরিচালকরা টুইটারে বিলকিস বানুকে শাহিনবাগের সাহসী ও অনুপ্রেরণার কণ্ঠ হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন। আইনজীবী কারুনা নানডি টুইটারে জানান, শাহিনবাগ থেকে সংবিধান পুনরুদ্ধারে সবচেয়ে বড় ভ‚মিকা রেখেছেন।
গত বছর ভারতে বিতর্কিত নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন পাস করায় দেশজুড়ে শুরু হয় ব্যাপক বিক্ষোভ-সহিংসতা। এই আইনের বিরোধিতায় দিল্লির শাহিনবাগে ১০০ দিনের বেশি সময় ধরে নাগরিকত্ব আইনবিরোধী বিক্ষোভ হয়। তীব্র শীতের মাঝে চলা বিক্ষোভে নারীদের অংশে নেতৃত্ব দেন ৮২ বছর বয়সি বিলকিস বানু।
চতুর্থবারের মতো তালিকায় মোদি : বিশে^র শীর্ষ ১০০ প্রভাবশালীর তালিকায় নাম উঠেছে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিরও। এ ছাড়াও ওই তালিকায় স্থান পেয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প, আসন্ন মার্কিন নির্বাচনে প্রেসিডেনশিয়াল পদপ্রার্থী জো বাইডেন, কমলা হ্যারিস, জার্মানির চান্সেলর অ্যাঞ্জেলা মের্কেল, শি জিনপিং।
তবে নরেন্দ্র মোদির নাম ম্যাগাজিন ‘টাইম’-এর ১০০ জন সেরা প্রভাবশালী ব্যক্তির তালিকায় বিবেচিত হওয়া নতুন নয়। ২০১৪ সালে কেন্দ্রে ক্ষমতায় আসার পর থেকে এই নিয়ে চতুর্থবারের মতো তার নাম সেই তালিকায় উঠেছে।
বিশে^র সেরা একশতে স্থান পেলেও টাইম ম্যাগাজিন মোদিকে যে খুব উদার প্রশংসাপত্র দিয়েছে তা নয়। প্রধানমন্ত্রী মোদির বিষয়ে টাইম ম্যাগাজিন লেখে, অনেকেই প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন ভারতে। তাদের বেশিরভাগই হিন্দু সম্প্রদায় থেকে এসেছেন। কিন্তু মোদি আমলে মনে হয়েছে আর কেউ যেন তার ধারে-কাছে নেই। উল্লেখ্য, ভারতের রাজনৈতিক আঙিনা থেকে একমাত্র প্রধানমন্ত্রী মোদিই এই তালিকায় স্থান করে নিয়েছেন।





সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, নির্বাহী সম্পাদক : শাহনেওয়াজ দুলাল, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড-এর পক্ষে
প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ। নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]