ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা মঙ্গলবার ১ ডিসেম্বর ২০২০ ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৭
ই-পেপার মঙ্গলবার ১ ডিসেম্বর ২০২০

শাহজাদপুরে আটক ৪ জঙ্গিকে থানায় হস্তান্তর
সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি
প্রকাশ: রোববার, ২২ নভেম্বর, ২০২০, ১১:০৭ পিএম আপডেট: ২২.১১.২০২০ ১২:০৮ এএম | প্রিন্ট সংস্করণ  Count : 22

শাহজাদপুরে জঙ্গি আস্তানা থেকে আটক চার জেএমবি সদস্যকে শনিবার বিকালে
থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। এ ঘটনায় র‌্যাব বাদী হয়ে আটক জেএমবির আঞ্চলিক সেকেন্ড ইন কমান্ড কিরণ ওরফে শামিম ওরফে হামিম, নাঈমুল ইসলাম, আতিয়ার রহমান ওরফে কলমসৈনিক  ও আমিনুল ইসলাম শান্তকে আসামি করে তিনটি মামলা করেছে। আটকদের একই দিন সন্ধ্যায় কড়া পাহারায় সিরাজগঞ্জ জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।
অন্যদিকে আটক জঙ্গিদের দুজন প্রকৃত নাম গোপন করে সেলিম ও নাঈম নাম ধারণ করে পাবনা জেলার বেড়া উপজেলার আলহেরা স্কুল অ্যান্ড কলেজের ছাত্র পরিচয় দিয়ে ওই বাড়ি ভাড়া নেয় বলে জানা গেছে। শনিবার সকালে পৌর এলাকার ১নং ওয়ার্ডের শেরখালী উকিলপাড়া ঘুরে জানা গেছে, জঙ্গি আস্তানা গড়ে ওঠা ওই বাড়ির প্রকৃত মালিক শামসুল হক রাজা।
উপসহকারী প্রকৌশলী শামসুল হক রাজা চাকরিসূত্রে বগুড়ায় বসবাস করেন। তার ভায়রাভাই একই ওয়ার্ডের দাবারিয়া মহল্লার বাসিন্দা আব্দুল্লাহ আল মামুন ওই বাড়ি দেখাশোনা করেন।
আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, চলতি মাসের ২ তারিখ পাবনা জেলার সাঁথিয়া উপজেলার খালেকুজ্জামান নামে (অব.) এক শিক্ষক নাঈম ও সেলিমকে নিয়ে বাড়ি ভাড়ার জন্য তার কাছে আসেন। তিনি নাঈমকে ছেলে ও সেলিমকে তার ভাতিজা পরিচয় দিয়ে তার জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি জমা দিয়ে মাসিক ২ হাজার টাকায় বাড়িটি ভাড়া নেন। জঙ্গি আস্তানা গড়ে ওঠা বাড়িটির ১শ’ গজের মধ্যে ফজলুল করিম কিরাতুল কোরআন হাফিজিয়া মাদ্রাসা ও বাইতুস শরিফ জামে মসজিদ রয়েছে। ওই মাদ্রাসার সুপার ও মসজিদের ইমাম হাফেজ আশরাফ আলী জানান, তিনি কখনই ওই জঙ্গিদের রাস্তাঘাটে চলাফেরা বা মসজিদে নামাজ পড়তে দেখেননি। এ ছাড়া জঙ্গি আস্তানার ওই বাড়ির অদূরে এক ভবনের মালিক নাঈম হোসেন জানান, এলাকায় জঙ্গিদের আস্তানা গড়ে ওঠার বিষয়ে তিনিও কিছু জানেন না। অন্যদিকে শেরখালী উকিলপাড়ার বাসিন্দা সিরাজগঞ্জ জজকোর্টের আইনজীবী অ্যাডভোকেট আব্দুল খালেক জানান, জঙ্গি আস্তানা কাদের ছত্রছায়ায় গড়ে উঠেছে তা সঠিক তদন্তের মাধ্যমে খুঁজে বের করে দোষীদের আইনের আওতায় আনার দাবি জানান।
থানার ওসি শাহিদ মাহমুদ খান জানান, র‌্যাব বাদী হয়ে আটক জঙ্গিদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবিরোধী, অস্ত্র আইন ও বিস্ফোরক আইনে তিনটি মামলা করেছে।
আটককৃতদের আদালতের মাধ্যমে সিরাজগঞ্জ জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। তবে জঙ্গিদের আটক করা হলেও শেরখালী উকিলপাড়ার বাসিন্দাদের আতঙ্ক কাটেনি। গোটা উপজেলায় একটাই আলোচনা ছিল জঙ্গি আস্তানা নিয়ে। এলাকার রাস্তা দিয়ে যানবাহন ও লোক চলাচল নেই বললেই চলে।
উল্লেখ্য, গত শুক্রবার পুলিশ শেরখালী উকিলপাড়া জঙ্গি আস্তানায় অভিযান চালিয়ে চার জঙ্গিসহ বিপুল পরিমাণ বোমা তৈরির সরঞ্জাম ও বিদেশি পিস্তল উদ্ধার করে।




সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, নির্বাহী সম্পাদক : শাহনেওয়াজ দুলাল, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড-এর পক্ষে
প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ। নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]