ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা শনিবার ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ১৪ ফাল্গুন ১৪২৭
ই-পেপার শনিবার ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১

চলে গেলেন রাইসউদ্দিন
প্রকাশ: বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারি, ২০২১, ১১:৪০ পিএম | প্রিন্ট সংস্করণ  Count : 19

ষ ক্রীড়া প্রতিবেদক
আক্রান্ত হয়েছিলেন করোনায়, ভর্তি ছিলেন রাজধানীর একটি হাসপাতালে। সেখান থেকে আর ঘরে ফেরা হলো না রাইসউদ্দিন আহমেদের। প্রাণঘাতী ভাইরাসের সঙ্গে লড়াইয়ে হেরে বুধবার সকালে পরপারে চলে গেলেন প্রবীণ এই ক্রীড়া সংগঠক (ইন্নালিল্লাহি ... রাজিউন)। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৮২ বছর।
বাংলাদেশের ক্রিকেটের শুরুর দিককার খোঁজখবর যাদের জানা, তাদের কাছে রাইসউদ্দিন অতি পরিচিত এক নাম। ১৯৭৬ থেকে ১৯৮১ সাল পর্যন্ত তিনি ছিলেন বাংলাদেশ ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের (বর্তমান বিসিবি) সাধারণ সম্পাদক। পরবর্তীতে (১৯৯৬ থেকে ১৯৯৮ সাল পর্যন্ত) বিসিবির সহসভাপতির দায়িত্বও পালন করেছেন। ক্রিকেটের প্রতি তার টান ছিল অসীম। বৃদ্ধ বয়সেও ছুটে আসতেন মাঠে, ঢুঁ মারতেন প্রেসবক্সে।
বাংলাদেশের ক্রিকেট এই পর্যায়ে উঠে আসার পেছনে বড় অবদান রাইসউদ্দিনের। যখন বিসিবির সাধারণ সম্পাদক ছিলেন, তখন তার ক্রিকেট কূটনীতির কারণেই প্রথমবার বিদেশি কোনো দল বাংলাদেশ সফর করে। ১৯৭৬ সালের ডিসেম্বরে খেলতে এসেছিল মেরিলিবোর্ন ক্রিকেট ক্লাব (এমসিসি)। এই এমসিসির সুপারিশেই পরের বছর আইসিসির সহযোগী সদস্যপদ পায় বাংলাদেশ, সেখান থেকেই বদলে যেতে থাকে দেশের ক্রিকেট, ধাবিত হতে থাকে উন্নতির পথে।
পূর্ব পাকিস্তান থেকেই ক্রিকেট সংগঠক হিসেবে রাইসউদ্দিনের পরিচিতি ছিল। তিনি ছিলেন ইস্ট পাকিস্তান স্পোর্টস ফেডারেশনের (ইপিএসএফ) ক্রিকেট সেক্রেটারি। ঢাকার ক্লাব ক্রিকেটের দুটো গুরুত্বপূর্ণ আসর ঢাকা লিগ আর কারদার সামার ক্রিকেট আয়োজনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা ছিল তার। ছিলেন ইগলেটস ক্রিকেট ক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা, এই ক্লাবটিই স্বাধীন সার্বভৌম বাংলাদেশে প্রথম ক্রিকেট আসর আয়োজন করেছিল।
বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের গুরুত্বপূর্ণ পদেও দায়িত্ব পালন করেছেন রাইসউদ্দিন। প্রতিষ্ঠানটিকে ঢাকার ক্রিকেট লিগে অন্তর্ভুক্ত করেছিলেন, সেই দলে খেলা ক্রিকেটারদের চাকরির নিশ্চয়তা দেওয়ার দৃষ্টান্তও স্থাপন করেছিলেন তিনি। ক্রিকেটের নিবেদিতপ্রাণ এই সংগঠককে তাই আজীবন সদস্যপদ দিয়ে সম্মানিত করেছিল এমসিসি।
এমন ক্ষণজন্মা সংগঠকের মৃত্যুতে গভীর শোক জানিয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। শোক প্রকাশ করে মরহুমের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছে জাতীয় ক্রিকেট দলের ফ্যান ক্লাব ‘বেঙ্গল টাইগার্স’। শোক জানিয়েছে কে-স্পোর্টস পরিবার। কে-স্পোর্টসের পরিচালক আশফাক আহমেদ রাইসউদ্দিনেরই ছেলে।








সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, নির্বাহী সম্পাদক : শাহনেওয়াজ দুলাল, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড-এর পক্ষে
প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ। নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]