ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা শুক্রবার ২৩ এপ্রিল ২০২১ ১০ বৈশাখ ১৪২৮
ই-পেপার শুক্রবার ২৩ এপ্রিল ২০২১

আবাহনীর ম্যাচ নির্ধারিত সূচিতেই
প্রকাশ: শুক্রবার, ৯ এপ্রিল, ২০২১, ১২:০০ এএম | প্রিন্ট সংস্করণ  Count : 10

ষ ক্রীড়া প্রতিবেদক
দেশে করোনাভাইরাসের প্রকোপ বৃদ্ধি পেয়েছে, ঢিলেঢালাভাবে হলেও চলছে লকডাউন। এমতাবস্থায় ১৪ এপ্রিল এএফসি কাপের ম্যাচ আয়োজনে অনীহা ছিল আবাহনীর। ম্যাচটি কিছুদিন পিছিয়ে দেওয়ার জন্য বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) মাধ্যমে এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশনের (এএফসি) কাছে লিখিতভাবে অনুরোধও জানিয়েছিল পেশাদার লিগে রেকর্ড ছয়বারের চ্যাম্পিয়নরা। কিন্তু ঐতিহ্যবাহী ক্লাবটির সেই অনুরোধ রাখেনি এএফসি। আবাহনী আর বাফুফেকে এশিয়ান ফুটবলের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি সাফ জানিয়ে দিয়েছে, নির্ধারিত সূচিতেই ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে।
মালদ্বীপের ক্লাব ঈগলস আর ভুটানের ক্লাব থিম্পু সিটির মধ্যে এফসি কাপের (প্রিলিমিনারি রাউন্ড-১) ম্যাচটি বুধবার যথাসময়ে মাঠে গড়ানোর পরই একপ্রকার নিশ্চিত হয়ে যায়, ১৪ এপ্রিল আবাহনীর ম্যাচটিও হবে। হচ্ছেও তাই। ক্লাব ম্যানেজার সত্যজিত দাস রুপু বলেই দিলেন, ‘আমরা ১৪ এপ্রিলের জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছি এখন। এএফসি ওই দিনটাতেই ম্যাচ আয়োজনের কথা বলেছে।’ ওই ম্যাচে তাদের প্রতিপক্ষ ঈগলস, যারা বুধবারের ম্যাচে থিম্পু সিটিকে ২-০ গোলে হারিয়েছে। ম্যাচটি হবে বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে, এএফসি ম্যাচ পেছাতে রাজি না হওয়ায় লকডাউনের মধ্যেই এখন নির্ধারিত সূচিতে সেটি আয়োজনের তোড়জোড় শুরু করে দিতে হচ্ছে আবাহনীকে।
কিন্তু আবাহনী আর এএফসি চাইলেই তো হবে না, এই করোনাকালে ম্যাচ আয়োজনে সরকারেরও সবুজ সঙ্কেত থাকতে হবে। কারণ এর সঙ্গে সফরকারী দলের কোয়ারেন্টাইন আর ভিসাসহ আরও কিছু বিষয় জড়িত আছে। অবশ্য বিষয়গুলো নিয়ে ইতোমধ্যেই স্বাস্থ্য অধিদফতরের সঙ্গে আলোচনা হয়েছে আয়োজকদের। তারা আর সরকার অনুমতি দিলেই ম্যাচটি আয়োজন সম্ভব হবে। বাফুফের সাধারণ সম্পাদক আবু নাইম সোহাগ নিশ্চিত করেছেন, ইতোমধ্যে অনুমতি পেয়েও গেছেন তারা। এই ম্যাচটি জিতলে আগামী মাসে মালেতে হতে যাওয়া এএফসি কাপের মূলপর্বে খেলার পথে একধাপ এগিয়ে যাবে আবাহনী। ২১ এপ্রিল ভারতে হবে পরের ধাপের প্লে-অফ, সেটিতে জিতলে মিলবে মূল পর্বের টিকেট।
আবাহনীর জন্য এএফসি কাপের মূল পর্বে খেলা নতুন কোনো বিষয় নয়। বছর দুয়েক আগে তো ক্লাবটি আঞ্চলিক সেমিফাইনালেও খেলেছে। তবে বসুন্ধরা কিংস দেশের ফুটবলে শীর্ষ দল হয়ে ওঠার পর পাল্টে গেছে দৃশ্যপট। ঘরোয়া আসরগুলোতে কিংস চ্যাম্পিয়ন হওয়ায় তারা সরাসরি মূল পর্বে খেলছে আর দ্বিতীয় হওয়ায় গতবার থেকে প্লে-অফ খেলতে হচ্ছে আবাহনীকে। গতবার এই প্লে-অফ বাধাও টপকাতে পারেনি মারিও লেমোসের দল, মালদ্বীপের মাজিয়া ক্লাবের বিপক্ষে অ্যাওয়ে গোলের খড়গে কাটা পড়ে আসর থেকে বিদায় নিতে হয় আবাহনীকে।
বরাবরের মতো গতবারের প্লে-অফ ছিল হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে ভিত্তিতে, অর্থাৎ দুই লেগের। করোনার কারণে এবার প্লে-অফ হচ্ছে এক ম্যাচের। অর্থাৎ যা করার তা নির্দিষ্ট ম্যাচটিতেই করতে হবে। সেই হিসেবে ঈগলসের বিপক্ষে নিজ মাঠে খেলার সুযোগ, মূল পর্বের পথে এগিয়ে যাওয়ার জন্য আবাহনীর জন্য দারুণ এক উপলক্ষই। এমন উপলক্ষ রাঙাতে পুরনো সৈনিক সানডে চিজোবাকে শিবিরে ভেড়াচ্ছে ঐতিহ্যবাহী আকাশি-হলুদ শিবির। আগামী রোববারের মধ্যেই এই নাইজেরিয়ান ফরোয়ার্ড ঢাকায় চলে আসবেন, এমনটাই জানিয়েছেন ক্লাব ম্যানেজার রুপু।
সানডে আসার আগেই অবশ্য ফিরে যাচ্ছেন ফ্রান্সিসকো তোরেস। প্রিমিয়ার লিগের প্রথম পর্বে ৭ গোল করা এই ব্রাজিলিয়ানকে ছেড়ে দিয়েছে আবাহনী। তার পরিবর্তেই সানডেকে ফিরিয়ে আনছে ক্লাবটি।







সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, নির্বাহী সম্পাদক: হারুন উর রশীদ, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড
এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]