ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা রোববার ১৬ মে ২০২১ ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮
ই-পেপার রোববার ১৬ মে ২০২১

কবে মাঠে ফিরবে প্রিমিয়ার লিগ?
প্রকাশ: সোমবার, ১৯ এপ্রিল, ২০২১, ১০:২৯ পিএম | প্রিন্ট সংস্করণ  Count : 22

ক্রীড়া প্রতিবেদক
মধ্যবর্তী দলবদলের আনুষ্ঠানিকতা শেষ। প্রথম পর্বে যেসব জায়গায় দুর্বলতা ছিল, এই দলবদলে পছন্দসই খেলোয়াড় এনে সেই দুর্বলতা ঢেকে দেওয়ার প্রয়াস চালিয়েছে ক্লাবগুলো। অথচ লিগে অংশ নেওয়া ১৩ ক্লাবের কেউ জানে না, কবে মাঠে গড়াবে লিগের দ্বিতীয় পর্ব! করোনা মহামারি আর দেশে চলমান লকডাউনের কারণে কোনো সিদ্ধান্তেও পৌঁছাতে পারছে না বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে)। সরকারের সিদ্ধান্তের দিকে দৃষ্টি রাখছে সংস্থাটি।
জানুয়ারিতে শুরু হয়ে ৭ মার্চ শেষ হয় লিগের প্রথম পর্ব। এরপর ৭ এপ্রিল পর্যন্ত মধ্যবর্তী দলবদলের সময়সীমা বেঁধে দেওয়া হয়েছিল। জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল দলবদল শেষ হওয়ার দুদিন পর অর্থাৎ ৯ এপ্রিল থেকে মাঠে গড়াবে দ্বিতীয় পর্ব। কিন্তু হঠাৎ করেই করোনার সংক্রমণ বেড়ে গেছে, প্রতিদিনই বাড়তে মৃতের সংখ্যা। এমতাবস্থায় লকডাউনের পথে হেঁটেছে সরকার। মাঠের ফুটবল স্থগিত করেছে বাফুফে। তবে ফিফা থেকে অনুমতি নিয়ে লিগের মধ্যবর্তী দলবদলের সময়সীমা ১০ দিন বাড়িয়ে নেয় সংস্থাটি। শনিবার সেটাও শেষ হয়েছে। কিন্তু লিগের দ্বিতীয় পর্ব কবে শুরু হবে, সেটা এখনও অজানা।
দ্বিতীয় পর্বের খেলা শুরু নিয়ে অংশগ্রহণকারী ক্লাবগুলো রয়েছে দ্বিমুখী অবস্থানে। কোনো কোনো ক্লাব লকডাউন শেষ হওয়া মাত্রই খেলা শুরু করে দেওয়ার পক্ষে। চলমান লকডাউন শেষ হবে ২০ এপ্রিল। ধারণা করা হচ্ছে, সময়সীমা আরও বাড়বে। আজ-কালের মধ্যে এ বিষয়টি পরিষ্কার হয়ে যাবে বলেই মনে করছে বাফুফে। মূলত এ কারণেই সুনির্দিষ্ট কোনো সিদ্ধান্ত ছাড়াই শেষ হয়েছে লিগ কমিটির ভার্চুয়াল সভা। রোববার ওই সভার পর বাফুফের সিনিয়র সহসভাপতি এবং লিগ কমিটির চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম মুর্শেদী বলেছেন, ‘ক্লাবগুলোর অবস্থান এবং মতামত জানলাম। করোনা পরিস্থিতিতে লকডাউনের ব্যাপারে সরকার কী সিদ্ধান্ত নেয়, এর প্রেক্ষিতে আমরা লিগ শুরুর ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেব।’
আপাতত বাফুফের পরিকল্পনা হচ্ছেÑ লকডাউন উঠে গেলে ঈদের আগেই লিগের আরও কয়েক রাউন্ড শেষ করে দেওয়া। চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে দেশের ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি আবার ক্রীড়া মন্ত্রণালয় আর স্বাস্থ্য অধিদফতরের সঙ্গে আলোচনা করবে। বাফুফেকে ভাবনায় রাখতে হচ্ছে জাতীয় দলের বিশ^কাপ বাছাই আর এএফসি কাপের বিষয়টিও। মালদ্বীপে ১৪-২০ মে এএফসি কাপের মূলপর্ব অনুষ্ঠিত হবে, সেখানে অংশ নেবে বসুন্ধরা কিংস। প্লে-অফের বাধা টপকাতে পারলে খেলবে আবাহনীও। স্বাভাবিকভাবেই ওই সময়ে লিগে অংশ নিতে পারবে না ক্লাব দুটো। তবে অধিকাংশ ক্লাবই চাইছে এএফসি কাপ যখন চলবে তখনও যেন লিগের খেলা মাঠে থাকে। সব কিছু মিলিয়েই সিদ্ধান্ত নিতে হবে বাফুফেকে।
সিদ্ধান্তে পৌঁছানোর আগে আরও একবার ক্লাবগুলোর সঙ্গে ভার্চুয়ালি সভা করবে বাফুফে। সেই সভাটি অনুষ্ঠিত হবে ২১ এপ্রিল। এ প্রসঙ্গে লিগ কমিটির চেয়ারম্যান সালাম মুর্শেদী বলেছেন, ‘সামনে এএফসি কাপ আর বিশ^কাপ বাছাইয়ের ম্যাচ রয়েছে। এই দুটো প্রতিযোগিতার সঙ্গে সমন্বয় করে ক্লাবগুলোর কাছে (লিগের দ্বিতীয় পর্বের) খসড়া সূচি পাঠানো হবে। লিগ শুরুর ব্যাপারে ২১ এপ্রিল জরুরি বৈঠক রয়েছে।’ ওই বৈঠকের পরই একটা রোডম্যাপ তৈরি করবে লিগ কমিটি। বেশিরভাগ ক্লাবই চাইছে যত দ্রুত সম্ভব দ্বিতীয় পর্ব শুরু করে লিগ শেষ করে দিতে। কারণটা পরিষ্কারÑ লিগ যত লম্বা হবে, ক্লাবগুলোর খরচ বাড়বে পাল্লা দিয়ে।
স্থানীয়রা তো আছেই। বিদেশি ফুটবলারদের পারিশ্রমিক দিতে হচ্ছে। অথচ এই করোনাকালে অধিকাংশ ক্লাবই আর্থিক অনটনের মধ্যে রয়েছে। ক্লাবগুলো তাই বকেয়া থাকা ‘অংশগ্রহণ ফি’ দ্রুত দিয়ে দেওয়ার জন্য বাফুফেকে তাগিদ দিয়েছে। এবারের লিগের অর্ধেকটা শেষ হয়ে গেছে, অথচ ক্লাবগুলো এখন পর্যন্ত গত আসরের অংশগ্রহণ ফি পুরোপুরি বুঝে পায়নি। গতবার পাঁচ-ছয় রাউন্ড খেলা হওয়ার পরই বন্ধ হয়ে গিয়েছিল লিগ। পরবর্তীতে মৌসুমটাই পরিত্যক্ত ঘোষণা করা হয়। এবার তেমন কিছু হোক, ক্লাবগুলো তা চায় না। চায় না বাফুফেও।




সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড
এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]