ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা  বুধবার ১৬ জুন ২০২১ ১ আষাঢ় ১৪২৮
ই-পেপার  বুধবার ১৬ জুন ২০২১

জীবন বীমায় ভর করে চাঙ্গা ভাব পুঁজিবাজারে
প্রকাশ: বুধবার, ৫ মে, ২০২১, ১২:০০ এএম | প্রিন্ট সংস্করণ  Count : 24

ষ নিজস্ব প্রতিবেদক
পুঁজিবাজারে সাধারণ বীমা খাতে চাঙ্গা ভাব অব্যাহত আছে। জীবন বীমার তিনটি ছাড়া বেড়েছে সবগুলো। কমেনি একটিরও দর। ঝিমাতে থাকা ব্যাংক খাতে টানা দুদিন বেশ কিছু কোম্পানির দর বৃদ্ধিতে এই খাত নিয়ে যে দীর্ঘ হতাশা তা কিছুটা হলেও দূর হবে কি না এ নিয়ে কথা হচ্ছে। টানা দুদিন ব্যাংক খাতে কিছুটা নড়চড় দেখা গেল পুঁজিবাজারে। সাধারণ বীমা খাতে বেশ কিছু কোম্পানির শেয়ারদর বাড়ল আরও। নতুন যোগ হয়েছে জীবন বীমা খাত।
পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ১২টি জীবন বীমা কোম্পানির মধ্যে ছয়টির দর বাড়ল এক দিনে যত বাড়া সম্ভব ততই। সর্বাধিক দর বৃদ্ধির ছয়টি কোম্পানিই এই খাতের। কোনো কোম্পানির দর কমেনি। তিনটির দর কেবল অপরিবর্তিত ছিল। সাধারণ বীমা খাতের ৩৮টি কোম্পানির মধ্যে দাম কমেছে কেবল তিনটির। পাল্টায়নি দুটির। আরও বেড়েছে বেড়েছে ৩৩টির দর। তবে ঝিমাতে থাকা ব্যাংক খাতে টানা দুদিন বেশ কিছু কোম্পানির দর বৃদ্ধিতে এই খাত নিয়ে যে দীর্ঘ হতাশা তা কিছুটা হলেও দূর হবে কি না এ নিয়ে কথা হচ্ছে। গত ডিসেম্বরে সমাপ্ত অর্থবছরে ব্যাংকিং খাত যে লভ্যাংশ দিয়েছে, সেটি কেবল আকর্ষণীয় নয়, অভাবনীয়ও বটে। করোনাকালে আয় কমে যাবে, লভ্যাংশ তলানিতে নামবেÑ এমন প্রচারের বিপরীতে ঘটেছে উল্টোটা। যেসব ব্যাংক লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে, তাদের সিংহভাগই মহামারির বছরে আয় করেছে আগের বছরের চেয়ে বেশি, লভ্যাংশও দিয়েছে ভালো। বেশ কিছু ব্যাংকে টাকা রাখলে বছর শেষে যে মুনাফা পাওয়া যায়, শেয়ার লভ্যাংশ দিয়েছে তার চেয়ে বেশি। সঙ্গে দিয়েছে বোনাস শেয়ার। তারপরও এই খাতে নড়চড় ছিল না গত কয়েক মাস ধরে। তবে চলতি সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস রোববার কিছুটা নড়চড় দেখা গেছে, দ্বিতীয় দিন বাড়ল আরও বেশ কিছু ব্যাংকের দর। সব মিলিয়ে এই খাতের ৩১টি কোম্পানির মধ্যে দাম বেড়েছে ১৫টির দর। কমেছে ছয়টির। বাকি ১০টির দর পাল্টায়নি। টাকার অঙ্কে সবচেয়ে বেশি প্রাইম ব্যাংকের বেড়েছে ১ টাকা ১০ পয়সা। পূবালী ও সাউথইস্ট ব্যাংকের দাম বেড়েছে ৬০ পয়সা করে। সিটি ও এনসিসি ব্যাংকের দর বেড়েছে ৪০ পয়সা করে। ৩০ পয়সা বেড়েছে আল আরাফাহ ও ডাচ্-বাংলার শেয়ার দর। বাকিগুলোর দর ১০-২০ পয়সা করে বেড়েছে।
সবচেয়ে বেশি কমেছে ফ্লোর প্রাইস প্রত্যাহার করা মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংকের দর। ৩০ পয়সা দর হারিয়েছে কোম্পানিটি। এবি, ইবিএল, ইসলামী, মার্কেন্টাইল ও রূপালী দর হারিয়েছে ১০-২০ পয়সা করে।
আর্থিক খাতে চাঙ্গা ভাব দেখা গেছে পর পর দুদিন। এই খাতের ২৩টি কোম্পানির মধ্যে ১২টির দাম বেড়েছে। টাকার অঙ্কে সবচেয়ে বেশি ২ টাকা ৩০ পয়সা বেড়েছে ন্যাশনাল হাউজিং ফিন্যান্সের দর। লংকাবাংলার দর বেড়েছে ৯০ পয়সা। বে লিজিং, বিডি ফিন্যান্স, ইসলামিক ফিন্যান্সের দর বেড়েছে ৫০ পয়সা করে। বাকিগুলো ১০-৪০ পয়সা করে বেড়েছে।
বস্ত্র খাতেরও বেশ কিছু কোম্পানির শেয়ার দর বেড়েছে। এর মধ্যে শতকরা হিসাবে সবচেয়ে বেশি বেড়েছে ম্যাকসন্স ও মেট্রো স্পিনিং মিলসের শেয়ার দর। ১০ শতাংশের কাছাকাছি বেড়েছে দর। ডেল্টা স্পিনার্সের দরও বেড়েছে ৯ শতাংশের বেশি। উল্লেখযোগ্য সংখ্যক বেড়েছে মালেক স্পিনিং মিলসের দরও।


মঙ্গলবার পুঁজিবাজারে সবচেয়ে বেশি দর বৃদ্ধি পাওয়া কোম্পানির মধ্যে দুটিই ছিল বীমা খাতের। একটি রূপালী লাইফ ইন্স্যুরেন্স এবং অন্যটি সানলাইফ ইন্স্যুরেন্স। দিনের সর্বোচ্চ ১০ শতাংশ করে শেয়ার দর বেড়েছে এই দুই কোম্পানির।
এ তালিকায় ছিল সন্ধানী ইন্স্যুরেন্স, যার শেয়ার দর বেড়েছে ৯ দশমিক ৯৬ শতাংশ। প্রাইম লাইফ ইন্স্যুরেন্স, যার শেয়ার দর বেড়েছে ৯ দশমিক ৯৪ শতাংশ। ডেল্টা লাইফ ইন্স্যুরেন্স, যার শেয়ার দর বেড়েছে ৯ দশমিক ৯১ শতাংশ। পদ্মা ইসলামী লাইফ ইন্স্যুরেন্স, যার শেয়ার দর বেড়েছে ৯ দশমিক ৯১ শতাংশ। ফারইস্ট লাইফ ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার দর বেড়েছে ৯ দশমিক ৮৩ শতাংশ। মেঘনা লাইফ ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার দর বেড়েছে ৯ দশমিক ৮৯ শতাংশ।
সাধারণ খাতের মধ্যে ইসলামী ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার দর বেড়েছে ৯ দশমিক ৮৯ শতাংশ। ইউনাইটেড ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার দর বেড়েছে ৯ দশমিক ৮৭ শতাংশ। স্ট্যান্ডার্ড ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার দর বেড়েছে ৯ দশমিক ৬৫ শতাংশ। কর্ণফুলী ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার দর বেড়েছে ৯ দশমিক ৪৯ শতাংশ। পূরবী জেনারেল ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার দর বেড়েছে ৯ দশমিক ৩৪ শতাংশ।
এদিকে মঙ্গলবার ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের তুলনায় ২৪ দশমিক ১১ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫ হাজার ৫৩৫ পয়েন্টে। শরিয়াহভিত্তিক কোম্পানি নিয়ে গঠিত ডিএসইএস ১ দশমিক ০৮ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ২৪৯ পয়েন্টে। বাছাই করা কোম্পানি নিয়ে গঠিত ডিএস-৩০ সূচক ২ দশমিক ৬৬ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ১১৮ পয়েন্টে।
লেনদেন হওয়া কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১৪১টির, কমেছে ১৪৭টির। দর পাল্টায়নি ৬৭টির। লেনদেন হয়েছে মোট ১ হাজার ৩৫৬ কোটি টাকা। আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল ১ হাজার ১৫৯ কোটি টাকা।
চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) প্রধান সূচক সিএএসপিআই ৩৭ দশমিক ৪৭ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৫ হাাজর ৯৯১ পয়েন্টে। লেনদেন হওয়া কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ১১২টির। কমেছে ১০৭টির। দর পাল্টায়নি ৪২টির। লেনদেন হয়েছে মোট ৩৭ কোটি ১৭ লাখ টাকা।









সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড
এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]