ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা  বুধবার ১৯ মে ২০২১ ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮
ই-পেপার  বুধবার ১৯ মে ২০২১

মামুনুল হক ফের পাঁচ দিনের রিমান্ডে
প্রকাশ: বুধবার, ৫ মে, ২০২১, ১২:০০ এএম | প্রিন্ট সংস্করণ  Count : 19

ষ আদালত প্রতিবেদক
রাজধানীর পল্টন থানার নাশকতার পৃথক দুই মামলায় হেফাজতে ইসলামের বিলুপ্ত কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব ও ঢাকা মহানগরীর সাধারণ সম্পাদক মামুনুল হককে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ফের পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। মঙ্গলবার ঢাকার মহানগর হাকিম সত্যব্রত সিকদার শুনানি শেষে এ আদেশ দেন। এদিন মুখ্য মহানগর হাকিম (সিএমএম) আদালতে মামুনুল হককে পল্টন ও মতিঝিল থানার নাশকতার মামলায় সাত দিনের রিমান্ড শেষে হাজির করে পুলিশ। এ সময় চলতি বছরের মার্চে বায়তুল মোকাররমে হেফাজতের তাণ্ডবের ঘটনায় পল্টন থানায় করা মামলার সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ১০ দিন রিমান্ডের আবেদন করে পুলিশ। তা ছাড়া একই ঘটনায় পল্টন থানায় করা আরেক মামলার সুষ্ঠু তদন্তের জন্য তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সাত দিন রিমান্ডের আবেদন করে পুলিশ। উভয় মামলা শুনানি শেষে এক মামলায় তিন দিন এবং অন্য মামলায় দুদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। এর আগে গত ২৬ এপ্রিল মতিঝিল ও পল্টন থানার নাশকতার দুই মামলায় তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সাত দিন এবং গত ১৯ এপ্রিল মোহাম্মদপুর থানায় হত্যার উদ্দেশ্যে আঘাত করে গুরুতর জখম, চুরি মামলায় সাত দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। এদিন মামুনুল হককে আদালতে হাজির করে পুলিশ। তাকে আদালতের হাজতখানায় রাখা হয়। এরপর তাকে আদালতে তোলা হয়। মামুনুল হককে আদালতে তোলাকে কেন্দ্র করে এদিন সকাল থেকেই আদালতপাড়ার নেওয়া হয় বাড়তি নিরাপত্তা। অনাকাক্সিক্ষত পরিস্থিতি এড়াতে আদালপাড়ায় কড়া নিরাপত্তার ব্যবস্থা নেয় পুলিশ। সিএমএম আদালত এলাকায় যেতে হলে যথাযথ কারণ দেখিয়ে যেতে হয়েছে।
জানা গেছে, গত ২৬ মার্চ বায়তুল মোকাররমে মামুনুল হকের নির্দেশে ১৭ হেফাজত নেতার নেতৃত্বে দেশি-বিদেশি আগ্নেয়াস্ত্রসহ দা, ছোরা, কুড়াল, কিরিচ, হাতুড়ি, তলোয়ার, লাঠিসোটাসহ অতর্কিতে হামলা চালানো হয়। হামলায় আরিফ-উজ-জামান গুরুতর আহত হন। এজাহারে আরও বলা হয়, ২৬ মার্চ দুপুরে বায়তুল মোকাররম মসজিদে জুমার নামাজ পড়তে যান বাদী। নামাজ শেষে মসজিদ থেকে বের হয়ে উত্তর গেটের সিঁড়িতে কয়েক হাজার জামায়াত-শিবির-বিএনপি-হেফাজতের উগ্র মৌলবাদী ব্যক্তির বিশাল জমায়েত দেখতে পান তিনি। হেফাজতে ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হকের নেতৃত্বে শীর্ষস্থানীয় জামায়াত-শিবির-বিএনপি-হেফাজত নেতারা ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে গোপন বৈঠকে মিলিত হয়ে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে ও জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে জাতীয় প্যারেড গ্রাউন্ডে দেশি-বিদেশি সরকারপ্রধান ও নারীপ্রধানদের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত কর্মসূচিকে বানচাল করা এবং ঢাকাসহ সারা দেশে ব্যাপক নৈরাজ্য সৃষ্টির পরিকল্পনা ও ষড়যন্ত্র করেন। সেই লক্ষ্যে সেখানে রাষ্ট্র ও সরকারবিরোধী নানা সেøাগান দেওয়া হয়। এ অভিযোগে গত ৫ এপ্রিল রাতে রাজধানীর পল্টন থানায় ১৭ জনের নাম উল্লেখ করে আরও ২ থেকে ৩ হাজার অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তিকে আসামি করে মামলা করেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের উপদফতর সম্পাদক ও ব্যবসায়ী আরিফুজ্জামান। মামলায় হত্যাচেষ্টা ও বিস্ফোরক আইনসহ কয়েকটি ধারায় অভিযোগ আনা হয়েছে। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির আগমনের প্রতিবাদে বায়তুল মোকাররমে তাণ্ডবের ঘটনায় এ মামলা করা হয়। মামলায় মাওলানা মামুনুল হককে হুকুমের আসামি করা হয়েছে। এর আগে গত ১৮ এপ্রিল দুপুরে মোহাম্মদপুরের জামিয়া রাহমানিয়া আরাবিয়া মাদ্রাসা থেকে তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।








সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড
এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]