ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা সোমবার ১৮ অক্টোবর ২০২১ ৩ কার্তিক ১৪২৮
ই-পেপার সোমবার ১৮ অক্টোবর ২০২১
http://www.shomoyeralo.com/ad/amg-728x90.jpg

সন্তানসহ প্রকৌশলী ও দুই বিআরটিএ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে দুদকের মামলা
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশ: বৃহস্পতিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ২:৪৬ এএম | অনলাইন সংস্করণ  Count : 67

অবৈধ সম্পদ অর্জন ও সম্পদের তথ্য গোপন করার অভিযোগে শিক্ষা প্রকৌশল অধিদফতরের সাবেক নির্বাহী প্রকৌশলী মির্জা নজরুল ইসলাম ও তার ছেলের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুদক। এ ছাড়া পৃথক ঘটনায় অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে বিআরটিএর দুই সহকারী পরিচালকের বিরুদ্ধে মামলা এবং ডিএনসিসির কাউন্সিলর শফিকুল ইসলাম সেন্টু ও তার স্ত্রীকে সম্পদ বিবরণী দাখিলের নির্দেশ দিয়েছে সংস্থাটি।

শিক্ষা প্রকৌশল অধিদফতরের সাবেক নির্বাহীর ৭ কোটি ২৪ লাখ ৯৫ হাজার ২৫০ টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জন ও সম্পদের তথ্য গোপন করার অভিযোগে শিক্ষা প্রকৌশল অধিদফতরের সাবেক নির্বাহী প্রকৌশলী মির্জা নজরুল ইসলাম ও তার ছেলে মির্জা অনিক ইসলামের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। সংস্থাটির প্রধান কার্যালয়ের উপপরিচালক মোনায়েম হোসেন বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন। বুধবার দুদক সচিব মু. আনোয়ার হোসেন হাওলাদার এ কথা বলেন।

তিনি জানান, মির্জা নজরুল ইসলাম ও তার ছেলে মির্জা অনিক ইসলাম তাদের অর্জিত অবৈধ আয়কে বৈধ করার উদ্দেশ্যে পারস্পরিক সহযোগিতায় স্থানান্তর ও রূপান্তরের মাধ্যমে আয়বহির্ভূত সাত কোটি ২৪ লাখ ৯৫ হাজার ২৫০ টাকার অবস্থান গোপন করায় মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন এবং দুর্নীতি দমন কমিশন আইনে তাদের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে।

ঘুষ-দুর্নীতির মাধ্যমে ১২ কোটি টাকার সম্পদ অর্জন : ঘুষ-দুর্নীতির মাধ্যমে ১২ কোটি টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জন এবং তথ্য গোপনের অভিযোগে বিআরটিএর সহকারী পরিচালক ফারহানুল ইসলাম ও তার ভাই রায়হানুল ইসলামের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

বুধবার দুদক প্রধান কার্যালয়ের উপপরিচালক মো. রফিকুজ্জামান বাদী হয়ে মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন ২০১২-এর ৪(২) ও ৪ (৩) ধারায় মামলাটি দায়ের করেন। বেলা ৩টার দিকে দুদক সমন্বিত জেলা কার্যালয় ঢাকা-১ মামলাটি তালিকাভুক্ত হয়। আসামিরা লক্ষ্মীপুর জেলার রামগতি থানার চড়ালগী গ্রামের মৃত নুরুল ইসলামের ছেলে।

মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, আসামিরা ২০১২ সালের ১৯ সেপ্টেম্বর চাকরিতে যোগদানের পর ২০২০ সাল পর্যন্ত ৬ বছরের মধ্যে স্ট্যান্ডার্ড চাটার্ড ব্যাংক, ইউসিবিএল, সোনালী এবং আইডিএলসিতে সঞ্চয়ী হিসাব, চলতি হিসাব, ক্রেডিট কার্ড হিসাবসহ মোট ১০টি হিসাব তাদের মা ও ভাইয়ের নামে পরিচালনা করে। এর মধ্যে ইউসিবিএল এবং সোনালী ব্যাংক ছাড়া মোট আটটি হিসাবে ঘুষ, দুর্নীতি ও অবৈধভাবে অর্জিত মোট ১২ কোটি ৮৪ লাখ টাকা লেনদেন, স্থানান্তর ও হস্তান্তর করার বিষয়টি দুদকের অনুসন্ধানে প্রমাণ হয়।
ডিএনসিসির কাউন্সিলর সেন্টুকে সম্পদ বিবরণী দাখিলের নির্দেশ

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) ৩১ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর শফিকুল ইসলাম সেন্টু ও তার স্ত্রীকে ২১ কার্যদিবসের মধ্যে সম্পদ বিবরণী দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন দুদকের অনুসন্ধান সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা।  গতকাল এক পত্রের মাধ্যমে তিনি এ নির্দেশ দেন বলে সংশ্লিষ্ট সূত্র নিশ্চিত করেছে।

/জেডও/




সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড
এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]