ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা সোমবার ২৫ অক্টোবর ২০২১ ১০ কার্তিক ১৪২৮
ই-পেপার সোমবার ২৫ অক্টোবর ২০২১
http://www.shomoyeralo.com/ad/amg-728x90.jpg

দুদকের মামলা
সিলেটে পাহাড় কেটে ২৫১ কোটি টাকার পাথর লুট
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশ: শুক্রবার, ১৫ অক্টোবর, ২০২১, ৪:২৮ এএম | অনলাইন সংস্করণ  Count : 42

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জে রাষ্ট্রীয় টিলা থেকে প্রায় ২৫১ কোটি ৬২ লাখ ৮৮ হাজার ৭৫০ ঘনফুট সরকারি পাথর অবৈধভাবে উত্তোলন করে বিক্রির ঘটনায় ঠিকাদারের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। বুধবার রাতে সিলেটের সমন্বিত জেলা কার্যালয়ে সহকারী পরিচালক মো. ইসমাইল হোসেন বাদী হয়ে ঠিকাদার মেসার্স বশির কোম্পানির মালিক মোহাম্মদ আলীর বিরুদ্ধে এ মামলা করেন। দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা মুহাম্মদ আরিফ সাদেক বৃহস্পতিবার এ তথ্য জানান।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের অধীনে খনিজ সম্পদ উন্নয়ন ব্যুরো থেকে ১০ শর্তে সিলেট জেলার কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার অন্তর্গত চিকাঢুরা মৌজায় শাহ আরেফিন টিলার ২৫ হেক্টর বা ৬১ একর এলাকা থেকে সাধারণ পাথর উত্তোলনের জন্য ২০০৫ সালের ৫ এপ্রিল এক বছরের জন্য মেসার্স বশির কোম্পানি পাথর কোয়ারি ইজারা পায়। কিন্তু ইজারাদার মেসার্স বশির কোম্পানির মালিক মোহাম্মদ আলী শর্ত ভঙ্গ করে পাথর উত্তোলন করায় খনিজ সম্পদ উন্নয়ন ব্যুরো পাথর উত্তোলন বন্ধ করে দেয়। কিন্তু আদেশ অমান্য করে পাথর উত্তোলন অব্যাহত রাখেন ওই ইজারাদার। পাথর উত্তোলনের জন্য ৬১ একর এলাকায় অনুমোদন পেলেও তিনি ১৩৭.৫০ একর জায়গাজুড়ে অবস্থিত সম্পূর্ণ টিলা থেকে পাথর উত্তোলন করেন। এক্ষেত্রে পরিবেশগত ছাড়পত্র গ্রহণের বাধ্যবাধকতা থাকলেও পরিবেশ সংরক্ষণ বিধিমালা অনুসরণ করেননি।

মামলায় তার বিরুদ্ধে পাথর উত্তোলন করে পরিবেশের অপূরণীয় ক্ষতির অভিযোগ আনা হয়েছে। একই সঙ্গে শাহ আরেফিন টিলার ২৫ হেক্টর বা ৬১ একর পাথর উত্তোলনের জন্য ইজারা গ্রহণ করে ১৩৭.৫০ একর জায়গাজুড়ে অবস্থিত সম্পূর্ণ টিলা থেকে ২৫১ কোটি ৫৫ লাখ ৯০ হাজার টাকার ৬২ লাখ ৮৮ হাজার ৭৫০ ঘনফুট পাথর অবৈধ উপায়ে উত্তোলন করে সরকারি সম্পদের ক্ষতিসাধন করার কথা বলা হয়েছে। মোহাম্মদ আলীর বিরুদ্ধে দণ্ডবিধির ৪২০ ও ৪০৬ ধারায় অভিযোগ আনা হয়েছে।

দুদক সূত্র জানায়, এর আগে ২০১৭ সালে পাথর উত্তোলনকালে একসঙ্গে ৫ শ্রমিকের মৃত্যুর ঘটনায়ও এই টিলায় অবৈধ কার্যক্রমের বিষয়টি আলোচনায় ওঠে। সে সময় জেলা প্রশাসনের তদন্তেও ইজারাদারের ব্যাপক অনিয়মের প্রমাণ মেলে।




সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড
এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]