ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা মঙ্গলবার ১৮ জানুয়ারি ২০২২ ৪ মাঘ ১৪২৮
ই-পেপার মঙ্গলবার ১৮ জানুয়ারি ২০২২
http://www.shomoyeralo.com/ad/Amin Mohammad City (Online AD).jpg

ইউনিয়ন পরিষদ ভোট
সহিংসতার ‘মডেল’ নির্বাচন
শাকিল আহমেদ
প্রকাশ: মঙ্গলবার, ৩০ নভেম্বর, ২০২১, ১২:১৮ এএম আপডেট: ৩০.১১.২০২১ ১২:২২ এএম | অনলাইন সংস্করণ  Count : 136

ধাপে ধাপে চলছে দেশের ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচন। নির্বাচনি ধাপের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে আহত ও নিহতের সংখ্যা। কিছুতেই নির্বাচনি সহিংসতার লাগাম টেনে ধরতে পারছে না নির্বাচন কমিশন (ইসি)। গত দুধাপের তুলনায় সহিংসতার সব মাত্রা ছাড়িয়ে গেছে তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচন। এটিকে ‘সহিংসতাহীন মডেল’ নির্বাচন দাবি করছে ইসি। সংবাদপত্রে প্রকাশিত খবরের তথ্য অনুযায়ী, নির্বাচনি সহিংসতায় প্রথম ধাপের ভোটের দিন প্রাণ হারিয়েছিল ৫ জন। দ্বিতীয় ধাপের ভোটের দিন মারা গেছে ৭ জন। গত রোববার তৃতীয় ধাপের ভোটে নিহত হয়েছে ১২ জন। তিন ধাপের ভোটের আগে-পরে সব মিলিয়ে মোট ৬৫ জনের প্রাণহানি ঘটেছে।

রোববারের সহিংসতায় এখন পর্যন্ত একজন বিজিবি সদস্যসহ ১২ জন নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। আহত হয়েছে দুশতাধিক। তবে ইসির দাবি, বিচ্ছিন্ন কিছু ঘটনায় ২৪ জন আহত হয়েছে। সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে অন্তত ১৩০টি কেন্দ্রে। গুলি ও ককটেল বিস্ফোরণ, জাল ভোট, কেন্দ্র দখল, ব্যালট পেপার ছিনতাইসহ নানা অনিয়মের ঘটনাও ঘটেছে এ নির্বাচনে। সহিংসতার কারণে ২১টি কেন্দ্রে ভোট স্থগিত করা হয়েছে। এখনও দেশের বিভিন্ন স্থানে সংঘাত-সংঘর্ষ চলছে।

পীরগঞ্জে নিহত ৩ : ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জ উপজেলার খনগাঁও ইউনিয়নের ঘিডোব সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভোটগণনার পর কারচুপির অভিযোগ ও ফল ঘোষণাকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর গুলিতে ৩ জন নিহত হয়েছে। নিহতরা হলোÑ ঘিডোবপুর গ্রামের সাহাবলি আহম্মেদ (৩৫), মোজাহারুল ইসলাম (৪০) ও অবিনাশ চন্দ্রের ছেলে আদিত্য (২০)। এর মধ্যে ঘটনাস্থলেই দুজন এবং রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে একজনের মৃত্যু হয়। পীরগঞ্জ থানার ওসি জাহাঙ্গীর হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

মুন্সীগঞ্জে নিহত ২ : সদর উপজেলার চরাঞ্চলের বাংলাবাজারে পৃথক সহিংসতার ঘটনায় শাকিল মোল্লা (৩০) ও রিয়াজুল শেখ (৬০) নিহত হন। আহত হয়েছে কমপক্ষে ১০ জন।

নরসিংদীতে নিহত ২ : পৃথক ঘটনায় ২ জন নিহত হয়েছে। রায়পুরার চান্দেরকান্দিতে ভোটগণনা শেষে সংঘর্ষে আরিফ (২৮) নামে এক অটোরিকশাচালক নিহত হন। উত্তরবাখরনগর ইউনিয়নে পৃথক সংঘর্ষে আহত ফরিদ মিয়া (৩২) নামে আরেকজন ঢাকায় নেওয়ার পথে মারা যান।

নীলফামারীতে বিজিবি সদস্য নিহত : কিশোরগঞ্জ উপজেলার গারাগ্রাম ইউনিয়নের পশ্চিম দলিরাম মাঝপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষে বিজিবি নায়েক রুবেল নিহত হয়েছেন। কিশোরগঞ্জ থানার ওসি আবদুল আওয়াল এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ভোটগণনার সময় দুই প্রার্থীর সমর্থকরা সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়লে পুলিশ ও বিজিবি সদস্যরা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে যায়। তখন দুপক্ষের সংঘর্ষে নায়েক রুবেল নিহত হন।

লক্ষ্মীপুরে নিহত ১ : রামগঞ্জে ইউপি নির্বাচনে ভোটকে কেন্দ্র করে ছাত্রলীগ নেতা সাজ্জাদ হোসেন সজীব নিহত হয়েছেন। বিকাল ৫টার দিকে ঢাকায় নেওয়ার পথে চাঁদপুরে অ্যাম্বুলেন্সে তিনি মারা যান।

খুলনায় নিহত ১ : ভোট শুরুর আগে তেরখাদা উপজেলার মধুপুরে আওয়ামী লীগ প্রার্থীর সমর্থক বাবুল শিকদার নিহত হয়েছে। শনিবার রাত সোয়া ১২টার দিকে ভোটের প্রচার চালানোর সময় আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থকরা তাকে হাতুড়িপেটা ও ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর জখম করে। পরে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও অবস্থার অবনতি হলে ঢাকায় নেওয়ার পথে রোববার ভোরে তার মৃত্যু হয়।

কক্সবাজারে নিহত ১ : চকরিয়ার বদরখালী ইউনিয়নে নৌকার প্রার্থীর বিজয় মিছিলে হামলায় গিয়াসউদ্দিন মিন্টু (৪৫) নামে একজন নিহত হয়েছেন। রোববার রাত ১২টার দিকে হামলায় আহত গিয়াসকে চকরিয়া উপজেলা সরকারি হাসপাতালে আনলে রাত সাড়ে ১২টার দিকে তিনি মারা যান।

যশোরে নিহত ১ : শার্শা উপজেলার কায়বা ইউনিয়নে সহিংসতায় কুতুবউদ্দিন (৪৫) নামে একজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছে আরও ৯ জন। ভোটের আগের দিন অর্থাৎ শনিবার রাতে ইউনিয়নের রুদ্রপুর গ্রামে এ হামলার ঘটনা ঘটে। হতাহতরা সবাই বিদ্রোহী প্রার্থী আলতাব হোসেনের কর্মী। নিহতের ছোট ভাই শাহাবুদ্দিন জানান, আনারস প্রতীকের পক্ষে কাজ করায় তাদের ওপর হামলা চালায় নৌকার সমর্থকরা। এতে তিনিসহ ৯ জন আহত হন। হাসপাতালে আনার পর তার বড় ভাই মারা যান।

এদিকে ভোলার চরফ্যাশন উপজেলার রসুলপুর ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডে নির্বাচনের ফল ঘোষণাকে কেন্দ্র করে প্রার্থীর বসতবাড়ি, দোকানপাট ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে হামলা ও ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে। রোববার রাতে ওই ওয়ার্ডের ভোটগণনায় মেম্বার প্রার্থী কামাল খান ও শাহে আলম বেপারির সমর্থকদের মধ্যে ভোটগণনায় সমান হলে উভয় প্রার্থীর সমর্থকরা সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এ ঘটনার জেরে তালা প্রতীকের বাড়িতে হামলা ও ৫টি দোকান ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে। এতে উভয়পক্ষের অন্তত ৭ জন আহত হয়।

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয় তৃতীয় ধাপের নির্বাচন-পরবর্তী সহিংসতায় তিনটি স্থানে হামলা, ভাঙচুর ও লুটপাটের ঘটনা ঘটেছে। রোববার রাতে বারদী, জামপুর ও পিরোজপুর ইউনিয়নের বিভিন্ন স্থানে এ সহিংসতার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় সোনারগাঁ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোস্তফা মুন্নাসহ প্রায় ৩৫ জন আহত হয়েছেন। এ ছাড়াও বারদী এলাকায় বর্তমান চেয়ারম্যান জহিরুল হকের বাড়িঘরসহ বিভিন্ন স্থানে হামলা, ভাঙচুর ও লুটপাটের ঘটনা ঘটে। এ সময় সাংবাদিকদের বহনকারী একটি গাড়িসহ প্রায় ৫টি গাড়ি ভাঙচুর করে হামলাকারীরা। এ ঘটনায় সোনারগাঁ থানায় পৃথক তিনটি অভিযোগ করা হয়েছে।
সিরাজগঞ্জের বেলকুচিতে নির্বাচন শেষ হতে না হতেই সহিংসতার ঘটনা ঘটেছে। রোববার অনুষ্ঠিত হয় তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচন। এই নির্বাচনকে কেন্দ্র করে গতকাল সন্ধ্যা ৭টার সময় উপজেলা রাজাপুর ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের নবনির্বাচিত ইউপি সদস্য সাইফুল ইসলাম বিজয়ী হয়ে তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী মুকুল হোসেনের সমর্থকের ওপর হামলা চালায়। এ সময় মুকুল হোসেনের দুই সমর্থক গুরুতর আহত হয়।

গত রোববার শেষ হয়েছে তৃতীয় ধাপে ৯৮৬টি ইউনিয়ন পরিষদ ও অষ্টম ধাপের ৯টি পৌরসভায় নির্বাচন। এদিন ১ হাজার ইউপিতে ভোট হওয়ার কথা থাকলেও ১৪টি ইউপিতে সব পদে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় প্রার্থীরা নির্বাচিত হওয়ায় ৯৮৬টি ইউপিতে ও ৯টি পৌরসভায় নির্বাচন হয়। এর মধ্যে ভোটকেন্দ্র প্রিসাইডিং অফিসারদের নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাওয়ায় ২১টি কেন্দ্রে নির্বাচন স্থগিত করা হয়েছে। ইভিএমের মাধ্যমে পৌরসভায় ৫৮ শতাংশ এবং ইউনিয়ন পরিষদে ৭০ শতাংশের ওপরে ভোট পড়েছে বলে দাবি ইসির।

নির্বাচন কমিশনার রফিকুল ইসলাম সময়ের আলোকে বলেন, নির্বাচনি সহিংসতার ঘটনা দুঃখজনক। আমরা সত্যি সত্যি মর্মাহত। কেউ পরাজিত হতে চায় না, কেউ পরাজয় মেনে নিতে চায় না। জয়ের জন্য প্রার্থীরা বেপরোয়া হয়ে যায়। পুলিশকে আমরা কড়া নির্দেশনা দিয়েছিলাম। যে কারণে ব্যালট পেপার ছিনতাই করতে গেলে পুলিশ গুলি চালিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনেছে। এতে চারজন নিহত হয়েছে। যারা ব্যালট পেপার ছিনতাই করেছে এই সহিংসতার জন্য তারাই দায়ী। এসব ঘটনায় একজন পুলিশ ও বিজিবি সদস্য নিহতের খবর পেয়েছি।




সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড
এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]