ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা শনিবার ২৯ জানুয়ারি ২০২২ ১৪ মাঘ ১৪২৮
ই-পেপার শনিবার ২৯ জানুয়ারি ২০২২
http://www.shomoyeralo.com/ad/Amin Mohammad City (Online AD).jpg

জামাতে নামাজ আদায়ে তাকবিরের বিধান
ইসলামের আলো ডেস্ক
প্রকাশ: শনিবার, ৪ ডিসেম্বর, ২০২১, ৭:২৭ এএম | অনলাইন সংস্করণ  Count : 103

নামাজে তাকবির বলা গুরুত্বপূর্ণ একটি আমল। নামাজ শুরু করার জন্য প্রথমেই একটি তাকবির বলা জরুরি। আল্লাহর বড়ত্বসূচক শব্দ দিয়ে নামাজ শুরু করাকে তাকবিরে তাহরিমা বলে। এর নিয়ম হলো- নামাজের নিয়ত করে পুরুষরা উভয় হাতের বৃদ্ধাঙুল কানের লতি বরাবর উঠাবে এবং হাতের তালু কিবলার দিকে করে হাতের আঙুলগুলো স্বাভাবিকভাবে রেখে ‘আল্লাহু আকবার’ বলবে। আর মহিলারা হাতের আঙুলগুলো মিলিয়ে রেখে কাঁধ পর্যন্ত উঠাবে।

জামাতে নামাজের সময় মুক্তাদিরা ইমামের তাকবিরে তাহরিমা বলার পর তাকবির বলবে। যদি মুক্তাদির তাকবিরে তাহরিমা ইমামের তাকবির শেষ হওয়ার আগে শেষ হয়ে যায়, তাহলে মুক্তাদির নামাজ সহি হবে না।

যদি কোনো ব্যক্তি জামাতে এসে ইমাম সাহেবকে রুকুতে পায়, তা হলে হাত উঠিয়ে দাঁড়ানো অবস্থায়ই তাকবিরে তাহরিমা বলবে। তারপর হাত না বেঁধে রুকুর তাকবির বলে রুকুতে যাবে। যদি তাকবিরে তাহরিমা ‘আল্লাহু আকবার’ দাঁড়ানো অবস্থায় বলা শেষ না করে কেউ রুকুতে যায়, তাহলে নামাজ হবে না, কেননা তখন তা রুকুর তাকবির বলে গণ্য হবে। আর তাকবিরে তাহরিমা বলা ইমাম, মুক্তাদি ও একা নামাজ আদায়কারী সবার জন্যই ফরজ।

তাকবিরে তাহরিমা ছাড়া নামাজের অন্য সব তাকবির বলা তাদের সবার জন্যই সুন্নত। অনেক মুক্তাদিকে দেখা যায়, জামাতের নামাজে উঠ-বসার তাকবির না বলে চুপ থাকেন, অথচ তা একটি গুরুত্বপূর্ণ সুন্নত। রুকু-সিজদা ও 

ওঠা-বসার তাকবিরগুলোর সুন্নত হলো- রুকু-সেজদার জন্য ঝুঁকে পড়ার সঙ্গে সঙ্গেই তাকবির বলা শুরু করবে এবং রুকু-সিজদায় গিয়েই তাকবির শেষ করবে। এমন যেন না হয় যে, আগেই তাকবির শেষ অথবা আগে রুকু-সিজদায় গিয়ে তারপর তাকবির শুরু করা হয়। (নাসায়ি : ১০২৪; আল মুহিতুল বুরহানি : ১/২৯৪; রদ্দুল মুহতার : ১/৪৮০; ফতোয়ায়ে আলমগিরি : ১/৭২)




http://www.shomoyeralo.com/ad/BD Sports News.gif

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড
এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]