ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা মঙ্গলবার ৬ ডিসেম্বর ২০২২ ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
ই-পেপার মঙ্গলবার ৬ ডিসেম্বর ২০২২
https://www.shomoyeralo.com/ad/Amin Mohammad City (Online AD).jpg

বাজেট সহায়তায় জাইকার কাছে ৬ হাজার কোটি টাকা চায় বাংলাদেশ
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশ: মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ৩:১৬ এএম | অনলাইন সংস্করণ  Count : 129

বাংলাদেশের অন্যতম উন্নয়ন সহযোগী জাপান ইন্টারন্যাশনাল কো-অপারেশন এজেন্সির (জাইকা) কাছে বাজেট সহায়তা হিসেবে ৬০ কোটি ডলার প্রত্যাশা করছেন পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান। তিনি বলেন, ‘বাজেট সহায়তা হিসেবে জাইকা ৬০০ মিলিয়ন (৬০ কোটি) ডলার দেবে বলে আশা করছি। টাকার অঙ্কে যা ছয় হাজার ৩৬০ কোটি (১ ডলার = ১০৬ টাকার হিসাবে)। এটা আলোচনা পর্যায়ে আছে, এখনও চূড়ান্ত হয়নি। সরকারের দায়িত্বে আছি বলে আলোচনা করেছি, অর্থ মন্ত্রণালয়, অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগ (ইআরডি) ও প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনা করে তারপর চূড়ান্ত হবে।’ 

সোমবার (২৬ সেপ্টেম্বর) আগারগাঁওয়ে মন্ত্রীর দফতরে জাইকার আবাসিক প্রতিনিধি ইয়ো হায়াকাওয়া বিদায়ি সাক্ষাৎ করতে আসেন। সাক্ষাৎ শেষে সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা জানান মন্ত্রী। এ সময় জাইকার নতুন আবাসিক প্রতিনিধি ইচিগুচি টমোহাইড সঙ্গে ছিলেন। পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, ‘সরকার বাজেট সহায়তা চেয়ে কিছু আভাস দিয়েছে। এটা প্রক্রিয়াধীন, আগামীতে ইতিবাচক বলে মনে হয়েছে। তবে সবার কিছু আইন-কানুন আছে, এগুলো মেনেই কাজ করতে হবে। আমার বিশ্বাস সব প্রসেসিং হওয়ার পর আমরা বাজেট সাপোর্ট পাব।’ তিনি বলেন, ‘এটা আলোচনার জন্য সঠিক জায়গা নয়। এটা নিয়ে কাজ করবে ইআরডি, তবে যেহেতু সরকারে আছি, মন্ত্রণালয়ে উঠেছি, তাই আলোচনা করেছি। পরিবেশটা অনেক ইতিবাচক। জাইকা ৬০০ থেকে ৭০০ মিলিয়ন ডলার বাজেট সহায়তা দেবে বলে আশা করছি।’

মন্ত্রী বলেন, ‘গ্রামীণ অবকাঠামো উন্নয়নে কাজ করতে আমরা আরও আগ্রহী। এই খাতে জাইকা কাজ করতে ইচ্ছুক। তারা আমাদের নৌবন্দরগুলোতে আরও কাজ করতে চায়। অবকাঠামো খাতে জাইকা বেশি কাজ করতে চায়। আড়াই হাজারে জাপানি অর্থায়নে ইকোনমিক জোন হচ্ছে। এখানে তারা কাজ করতে চায়, এটা নিয়ে আলোচনা হচ্ছে, প্রকল্পটি দ্রুত সময়ে একনেক সভায় উঠবে। ইতোমধ্যে মাতারবাড়ী কয়লা বিদ্যুতে জাপান কাজ করছে।

বাংলাদেশের অর্জন সত্যিই বিস্ময়কর : ইয়ো হায়াকাওয়া 
সাক্ষাৎ শেষে জাপান আন্তর্জাতিক সহযোগী সংস্থার (জাইকা) বিদায়ি আবাসিক প্রতিনিধি ইয়ো হায়াকাওয়া বলেছেন, ‘বাংলাদেশে দীর্ঘ তিন বছর কাজ করেছি। দেশটির নানা খাতে আমি নিবিড়ভাবে জড়িত। বাংলাদেশের অর্জন সত্যিই বিস্ময়কর। এ দেশে দীর্ঘদিন কাজ করে আমার মনে হয়েছে সব খাতে বাংলাদেশ ভালো করছে। করোনা সঙ্কট মোকাবিলাসহ নানা খাতে দেশটির অর্জন বিস্ময়কর।’

বাংলাদেশে নিযুক্ত জাইকার নতুন আবাসিক প্রতিনিধি ইচিগুচি টমোহাইড বলেন, ‘আমি নতুন করে বাংলাদেশে কাজ করতে আসিনি। গত ১০ বছর আগে থেকেই কাজ করছি। বাংলাদেশের নানা মেগা প্রকল্পে আমি কাজ করেছি। আমার বয়স আর বাংলাদেশের বয়স একই। জাপান ডেস্কে বসেই অনেক গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্পে অবদান রেখেছি। যেমন মেট্রোরেল, মেঘনা-গোমতী-কাঁচপুর সেতু, মাতারবাড়ী কয়লা বিদ্যুৎকেন্দ্র ইত্যাদি। সুতরাং আমার কিছু পূর্ব অভিজ্ঞতা আছে বাংলাদেশের সঙ্গে কাজ করার।’





https://www.shomoyeralo.com/ad/Google-News.jpg

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড
এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : shomoyeralo@gmail.com