ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা বৃহস্পতিবার ৮ ডিসেম্বর ২০২২ ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
ই-পেপার বৃহস্পতিবার ৮ ডিসেম্বর ২০২২
https://www.shomoyeralo.com/ad/Amin Mohammad City (Online AD).jpg

এ সপ্তাহের কবিতা
প্রকাশ: শুক্রবার, ১৮ নভেম্বর, ২০২২, ৫:৫৩ এএম | অনলাইন সংস্করণ  Count : 78

কার কাছে নতজানু হয়েছিলে
দুলাল সরকার 

খুঁজছ কি কিছু অনুভূতি-দেহ? কোথায় রেখেছ
মনে করে দেখ মানুষ তো অনভূতি দাস
কোথাওবা আছে অনুভূতিপ্রবণ এ দেহের 
আনাচেকানাচে অথবা দেহের সাথে জীবনের 
জীবনের সাথে দেহ? সম্পৃক্ত চারপাশে পথ
পায়ে পায়ে পথের জন্মের ইতিহাস,পার্থিব সত্তার 
কোথাও কোথাও কিছু ফেলে যাও জলের বাকল
মনে করে দেখ পাতাটা উল্টাও হেমন্ত মাঠ 
কার কাছে নতজানু হয়েছিলে, কে প্রথম রাত 
কে প্রথম ভালোবেসেছিল দোয়েল না তুমি 
তুমি না দোয়েল? জীবনের আর কি স্বাদ 
সাদা কাগজের মতো মনে প্রথম প্রজ্ঞার জন্ম দিল 
যেতে যেতে খুঁজে প্রিয় অভিমান জীবনের সাথে যেতে।

যাপিত সমুদ্রের ছায়া
ফকির ইলিয়াস

জানি, যাপনের জন্য নির্দিষ্ট কোনো রাত্রি থাকে না 
উৎসবের জন্য বরাদ্দ থাকে না কোনো বিকেল
কিংবা যে আগামী আমাকে ভেদ করে ফিরছে পেছনে;
তাকেও স্বাগত জানাতে দাঁড়িয়ে আছে কেউ কেউ!

যারা সুতোর কারুকাজ জানে, তারা জীবন কাটাতেই
পারে তাঁত-তপস্যায়। যারা নিতে পারে হেমন্তের ঘ্রাণ-
তাদের নিজের কোনো ভূমি না থাকলেও,
ছুঁতে পারে মৃত্তিকার আগুন। সেই আগুনে-
যাপন করতে পারে উষ্ণ সবুজের ছায়া।

সমুদ্রের ঢেউ মানুষকে শঙ্কিত করে তুলতে পারে না
বরং যারা সমুদ্র-সাধনে বেরোয়;
সাগর এসে তাদের পদযুগল স্পর্শ করে,
আর সেই স্পর্শকেই তোমরা বলো-‘প্রেম’!

অভিসম্পাত
অঞ্জনা সাহা 

বিষাদমাখা বিন্দু বিন্দু নীল শিশিরের
অঝোরধারায় কেন আমাকেই
ভিজতে হবে প্রতিদিন?
অসম্ভবের পায়ে আমিই তো 
অবিরাম মাথা কুটে মরি। 
অযথাই কেন তুমি সন্দেহের সংগোপন বীজ 
বুনে দাও আমারই যত্নে গড়া নিভৃত বাগানে?

মূলত এই দোষ কার-
আঁধারলিপ্ত রাতের, না আমার?
আমি মোক্ষলাভের আশায় 
নিরন্তর একলব্য-সাধনায় 
নিজেকে আড়াল করে রাখি
তুমি জানো না পাবক, আমি জানি
অর্থমূল্যে কেনা যায় না কারো দীর্ঘশ্বাস! 

প্রাকৃতিক প্রতিশোধের লোলজিহ্বা একদিন 
তোমারই বক্ষে বাজাবে সর্বনাশের বাঁশি!


বাড়ি 
বিনয় কর্মকার

একদিন সেনগুপ্ত দিদি বলছিলেন-
আমার ফ্ল্যাটের এই ব্যালকনিটা আমার খুব প্রিয় জায়গা।
সকালে ঘুম থেকে উঠে এখানটায় এসে বসি,
বুলবুলির ডাক শুনি
টুনটুনির ডাক শুনি
ঘুঘুর ডাক শুনি
দোয়েল, চড়ুই আরও কত-শত পাখি আসে,
রাতে লক্ষ্মীপেঁচা-

গরমের দিনে হাওয়া খাই ...
বর্ষায় আকাশে কালো মেঘেদের আনাগোনা, অঝোর ধারার বৃষ্টি-
শরতে রোদ-মেঘে লুকোচুরি,
রাতে পূর্ণিমার চাঁদ।
শীতের সকালে মিষ্টিমাখা নরম রোদ...

সেনগুপ্তদি যখন বললেন-
আমার মনে হয়, সবারই তার বাড়ির কোনো একটা
জায়গা বেশ ভালো লাগার থাকে।
আমি শুধু বলেছিলাম-
সবার তো বাড়ি থাকে না!

পতঙ্গ স্বভাব
আরিফ মঈনুদ্দীন

মনের সুখে উড়ছে পতঙ্গ সকল
রক্তে তার অবিমৃশ্যকারী গুণ
সে এদিক সেদিক করবে এই নিয়তি তার সুদূরপরাহত

আবার একজনম নিয়ে এসে আগুনের দাহ্যগুণ সম্পর্কে পাঠ নেবে,
সমৃদ্ধ হবে-অসম্ভবের এই বৃত্ত ভাঙা তার জন্য নয়।
মোহরমারা হতভাগ্যের মতন গলায় ঝুলিয়ে দেওয়া অদৃশ্য শিকল
সঙ্গী করেই হাঁটবে বাকি জীবন এবং জীবনের পিচঢালা পথ

কুলীন স্বভাব অনুপস্থিত বলেই 
ধরাছোঁয়ার বাইরে তার সভ্য জগতের আলো
ভুল নয়, নেই-বিবেচনাই তার নিয়তি

এইভাবে হেঁটে-চলে বলে-কয়ে
কিছুই পাবে না সে-সফল বাক্য, সাফল্যের যত কলা
কিছুই ধরা দেবে না-তা ঠিক না,
ধরা দেওয়ার কথাও তো না-
আগুনে পুড়েই শেষ, এটাই পরিসমাপ্তি।




https://www.shomoyeralo.com/ad/Google-News.jpg

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড
এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : shomoyeralo@gmail.com