ই-পেপার শনিবার ১৮ জানুয়ারি ২০২০ ৪ মাঘ ১৪২৬
ই-পেপার শনিবার ১৮ জানুয়ারি ২০২০

দিনাজপুরে পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে দুই মাদক ব্যবসায়ী নিহত
নিজস্ব প্রতিবেদক, দিনাজপুর
প্রকাশ: সোমবার, ১৩ জানুয়ারি, ২০২০, ১:৩৪ পিএম | অনলাইন সংস্করণ  Count : 2873

দিনাজপুরে ডিবি পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে দুই মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন। এসময় ডিবির এক এএসআই ও এক কনস্টেবল গুরুতর আহত হয়েছেন।

সোমবার (১৩ জানুয়ারি) দিবাগত রাত দেড়টার দিকে সদর উপজেলার আস্করপুর ইউনিয়নের নশনদিঘী তাজপুর সরকারপাড়ায় এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে।

এতে নিহত মাদক ব্যবসায়ী হলেন, দিনাজপুর শহরের দক্ষিণ বালুবাড়ির লাইনপাড়-সিপাহীপাড়া এলাকার মৃত শেখ রহমানের ছেলে রহমত আলী ওরফে রসমত আলী (৪০) ও শহরের ফুলবাড়ী বাসষ্ট্যান্ড লাইনপাড়-সিপাহীপাড়া এলাকার মৃত মনসুর আলীর ছেলে আবুল কাশেম কাইশা (৩৬)। তাদের বিরুদ্ধে দিনাজপুর কোতয়ালী থানায় ১৬-১৮টি মাদক মামলা রয়েছে।

বন্দুকযুদ্ধে আহত ডিবি পুলিশের এএসআই নাহিদ হাসান ও কনস্টেবল মাহাবুব আলম গুরুতর আহতাবস্থায় তাদের দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ঘটনার প্রেক্ষিতে সোমবার সকাল সাড়ে ১১টায় দিনাজপুর পুলিশ সুপার মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন বিপিএম, পিপিএম (বার) এক প্রেস ব্রিফিংয়ে সময়ের আলোকে বলেন, ১৩ জানুয়ারি সোমবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে সদর উপজেলার আস্করপুর ইউনিয়নের নশনদিঘী তাজপুর সরকারপাড়া গ্রামের কবরস্থানের পার্শ্বে ডিবি পুলিশের একটি টহল দল অবস্থান করছিল। এ সময় ভারত সীমান্তের দিক হতে আনুমানিক ১০-১২ জন অজ্ঞাতনামা অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী ডিবি পুলিশের কাছাকাছি আসতে থাকলে তাদেরকে গ্রেফতার করার জন্য অগ্রসর হলে অস্ত্রধারীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে এলোপাতারি গুলি ছুঁড়তে থাকে।

পরক্ষণে ডিবি পুলিশ তাদের নিরাপত্তার স্বার্থে পরপর ৪ রাউন্ড গুলি ছুড়ে। এতে অস্ত্রধারীরা ছত্রভঙ্গ হয়ে গুলি ছুঁড়তে ছুঁড়তে পিছনের দিকে পালিয়ে যায়। এরই মধ্যে ডিবি পুলিশের সংবাদে কোতয়ালী থানার টহলরত পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে পৌছে।

তিনি আরও জানান, ঘটনাস্থলে তল্লাশী করে দুই পুলিশকে আহতাবস্থায় ও দুই মাদক ব্যবসায়ী দলের সদস্যকে গুরুতর আহতাবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে তাৎক্ষণিক চিকিৎসার জন্য পুলিশের ভ্যানে করে দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম  মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। গুরুতর আহত মাদক ও চোরাকারবারী দলের দুই সদস্য মৃত বলে ঘোষণা করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক।

ঘটনাস্থল থেকে মাদক ব্যবসায়ীদের ব্যবহার করা একটি সচল ওয়ান শ্যুটার গান, দুই রাউন্ড গুলি, ৩টি ব্যাগে ১৫০ বোতল ভারতীয় তৈরী ফেন্সিডিল ও ৫০ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয় বলে তিনি প্রেসব্রিফিংয়ে জানান।

পুলিশ সুপার আরও জানান, নিহত মাদক ব্যবসায়ী আবুল কাশেম ওরফে কাইস্যার স্ত্রী গুলশান আরা বেগমও একজন মাদক ব্যবসায়ী। তার ভাই শহিদুল একজন প্রতিবন্ধী হয়েও মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত। এছাড়াও অপর নিহত মাদক ব্যবসায়ী রসমত আলী ওরফে হাসমত আলীর তিন ভাই শহিদুল, শাহিন ও শাহেদসহ তার স্ত্রী, শ্বাশুড়ী, দুই ছেলে এবং মেয়ে সেলিনাও মাদক ব্যবসায়ী।

নিহত মাদক ব্যবসায়ীরা বংশগতভাবে ফেন্সিডিল, ইয়াবা, গাঁজা, হেরোইনসহ বিভিন্ন মাদক ব্যবসা করে দীর্ঘদিন যাবত জীবিকা নির্বাহ করে আসছে বলে প্রেসব্রিফিংয়ে জানান তিনি।

প্রেসব্রিফিংয়ে উপস্থিত ছিলেন দিনাজপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কাজিম উদ্দিন, শচীন চাকমা, ডিবি ওসি এটিএম গোলাম রসুল, দিনাজপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি স্বরূপ বকশী বাচ্চু, সাধারণ সম্পাদক গোলাম নবী দুলালসহ প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়া কর্মী।




সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড-এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]