ই-পেপার বিজ্ঞাপনের তালিকা সোমবার ৩০ মার্চ ২০২০ ১৫ চৈত্র ১৪২৬
ই-পেপার সোমবার ৩০ মার্চ ২০২০

শ্রীনগরে ভুল চিকিৎসায় প্রসূতির মৃত্যুতে গ্রেফতার ৩
শ্রীনগর (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি
প্রকাশ: শুক্রবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১১:১৪ পিএম আপডেট: ২৮.০২.২০২০ ১২:৫৫ এএম | প্রিন্ট সংস্করণ  Count : 19

উপজেলার এক ক্লিনিকে ভুল চিকিৎসায় লাবনী আক্তার (২৬) নামে এক প্রসূতির মৃত্যুর ঘটনায় ৩ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গত বুধবার রাতে উপজেলার ঝুমুর হল সংলগ্ন বিক্রমপুর হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারে এই ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় প্রসূতির স্বামী মো. মুহিন বাদী হয়ে ওই ক্লিনিকের মালিক স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজের সহকারী অধ্যাপক প্রদীপ কুমার মÐলকে প্রধান আসামি করে ৪ জনের বিরুদ্ধে শ্রীনগর থানায় একটি মামলা করেন।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, ওই দিন বিকালে লৌহজং উপজেলার কনকসার এলাকার বেদে সম্প্রদায়ের লাবনী আক্তারকে দ্বিতীয় সন্তান প্রসবের জন্য ক্লিনিকটিতে ভর্তি করা হয়। সন্ধ্যায় লাবনীকে অপারেশনের জন্য ওটিতে নেওয়া হয়। এর এক ঘণ্টা পর ডাক্তাররা লাবনীকে ঢাকায় পাঠানোর তোড়জোড় শুরু করে। স্বজনরা এ সময় লাবনী মারা গেছে বলে জানতে পারে। তারা এ নিয়ে কথা বলতে গেলে হাসপাতালের মালিক ও ডাক্তার প্রদীপ কুমার মÐলসহ ৩-৪ জন পালিয়ে যায়। পরে পুলিশ এসে ওটি সহকারী সঞ্জয় রায়, নার্স রিতা আক্তার ও সুমনাকে আটক করে। লাবনীর ৮ বছর বয়সি এক সন্তান রয়েছে।
লাবনীর স্বজনরা জানায়, সিজারের জন্য ক্লিনিকটির সঙ্গে তাদের ১৩ হাজার টাকায় চুক্তি হয়। পরে লাবনীকে ওটি রুমে নেওয়ার আগেই বিভিন্ন অজুহাতে ক্লিনিক কর্তৃপক্ষ তাদের কাছ থেকে ১৭ হাজার টাকা হাতিয়ে নেয়। তাদের দাবি, ভুল চিকিৎসার কারণেই লাবনীর মৃত্যু হয়েছে। ক্লিনিকটির পরিচালক ডা. প্রদীপ মÐলের কাছে এ বিষয়ে জানতে তার মোবাইল ফোনে একাধিকবার কল করা হলেও তা বন্ধ পাওয়া গেছে। শ্রীনগর থানার ওসি (তদন্ত) হেলাল উদ্দিন জানান, অভিযোগের প্রেক্ষিতে মামলা গ্রহণ করে ৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। মামলার প্রধান আসামিকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।





সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত


ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: কমলেশ রায়, আমিন মোহাম্মদ মিডিয়া কমিউনিকেশন লিমিটেড-এর পক্ষে প্রকাশক গাজী আহমেদ উল্লাহ
নাসির ট্রেড সেন্টার, ৮৯, বীর উত্তম সি আর দত্ত সড়ক (সোনারগাঁও রোড), বাংলামোটর, ঢাকা।

ফোন : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৬৮-৭৪, ফ্যাক্স : +৮৮-০২-৯৬৩২৩৭৫। ই-মেইল : [email protected]